(দিনাজপুর টোয়েন্টিফোর ডটকম) সকালে ব্যাটিং করাটা একটু কঠিন ছিল। সিম হচ্ছিল, সুইং হচ্ছিল। কিন্তু আমাদের আউটগুলো যদি দেখেন, ৩-৪টা আউট খুবই সফট ছিল। যেগুলা আমরা আশা করি না। আমাদের ব্যাটিংয়ে আমরা অনেক গর্ব খুঁজে নেই। ১৩০ রান করার মতো দল আমরা নই, যতই কঠিন পরিস্থিতি থাকুক না কেন। অবশ্যই আমরা ভালো খেলিনি। শট নির্বাচন ভুল ছিল বলেই ১৩০ করেছি। যে ভুল আমরা করেছি, যে সফট আউটগুলো ছিল, এগুলোর যদি পুনরাবৃত্তি না করি, আশা করি সামনের ম্যাচগুলোয় ভালো হবে। এখানে যদি আমাদের ভালো কিছু করতে হয়, তাহলে কমপক্ষে আমাদের ২৭০-২৮০ রান করতে হবে।’

ম্যাচ শেষে সংবাদ সম্মেলনের পর কথাগুলো বলছিলেন বাংলাদেশ ক্রিকেট দলের অধিনায়ক তামিম ইকবাল। আজ শনিবার ডানেডিনে নিউজিল্যান্ডের বিপক্ষে প্রথম ওয়ানডের ব্যাটিংয়ে হতশ্রী পারফরম্যান্স দলের গর্বের জায়গায় চোট লেগেছে বলে মনে করেন তিনি। ব্যর্থতার দায় নিজের কাঁধে নিয়ে কথাগুলো বলেন তামিম।

শুরুর দিকে উইকেট হারিয়ে নিজেদের ইনিংসে কোনঠাসা হয়ে পড়ে টিম বাংলাদেশ। ১৩১ রানে অলাাউট হয়ে যাওয়ার পর বোলিংয়ের টাইগারদের তেজ দেখা যায়নি। নিউজিল্যান্ড জয় পায় ৮ উইকেটে। কোনো অজুহাত না দিয়েই নিজেদের ভুল মেনে নিয়েছেন তামিম।

সংবাদ সম্মেলনে তিনি বলেনে, ‘প্রস্তুতি নিয়ে কোনো দোষ দিব না। কোনো অজুহাতও দেব না। কারণ আমার ব্যক্তিগতভাবে মনে হয়েছে, ১৪ দিনের কোয়ারেন্টিনে ৭ দিন আমরা ছোট ছোট গ্রুপ করে অনুশীলন করতে পেরেছি। পরে কুইন্সটাউনে গিয়েও অনুশীলন করতে পেরেছি। সুতরাং আমার কাছে মনে হয় না, প্রস্তুতিতে আমাদের কোনো ঘাটতি ছিল।’

তামিম আরও বলেন, ‘নিউজিল্যান্ডে গত ৪ বছরে আমরা প্রায় ২-৩ বার এসেছি। আমরা জানি, কী হতে পারে এখানে, কোন ধরণের বল হবে। এটা তাই কোনো অজুহাত হতে পারে না যে আমাদের প্রস্তুতি ঠিক ছিল না।’ -ডেস্ক রিপোর্ট