স্টাফ রিপোর্টার (দিনাজপুর২৪.কম) দিনাজপুরে সরকারি কোষাগার থেকে ভুয়া বিল ভাউচার মাধ্যমে ২ কোটি ১৯ লাখ ৬৯ হাজার ৪২৮ টাকা আত্মসাতের মামলায় দুই সরকারি কর্মকর্তাকে গ্রেফতার করেছে পুলিশ। মঙ্গলবার সন্ধ্যায় কোতয়ালী থানা পুলিশ আদালতের মাধ্যমে জেলা কারাগারে পাঠিয়েছে। আটক দুই সরকারি কর্মকর্তা হল- আমিরুল ইসলাম (৩৪) দিনাজপুর এম আব্দুর রহিম মেডিক্যাল কলেজ হাসপাতালে ক্যাশ সরকার পদের কর্মরত। তিনি সাতক্ষীরা জেলার দেবহাটা উপজেলার আস্করপুর ডাকঘরাধীন মাটি কোমরা গ্রামের আরশাদ আলীর ছেলে। তিনি বর্তমানে দিনাজপুর সদরের ৮নং উপশহর এ/পি ৮ নং ব্লকে বসবাস করছেন। মাহাফুজুর রহমান (৪২) দিনাজপুর জেলা একাউন্টস এন্ড ফিন্যান্স অফিসে অডিটর পদে কর্মরত রয়েছেন। তিনি দিনাজপুর জেলা সদরের কসবা গ্রামের হামিদুর রহমানের ছেলে।
মামলার এজাহার সূত্রে জানা গেছে, ইলেকট্রনিক্স ডিভাইজ ব্যবহার করে গত ২০১৯ সাল থেকে ২০২১ সালে ৩১ জানুয়ারি পর্যন্ত বিভিন্ন দিনের বিভিন্ন সময়ে ভুয়া বিল ভাউচার তৈরি প্রস্তুত ও প্রভাব খাটিয়ে জালিয়াতি করে জাল ভাউচারটিকে পুঁজি করে বাংলাদেশ সরকারের ২ কোটি ১৯ লাখ ৬৯ হাজার ৪২৮ টাকা আত্মসাৎ করে।
দিনাজপুর কোতয়ালী থানার ওসি তদন্ত আসাদুজ্জামান সরকারি দুই কর্মকর্তাকে গ্রেফতারের সংবাদ নিশ্চিত করে বলেন, গত সোমবার রাতে ওই দুই কর্মকর্তার বিরুদ্ধে ডিজিটাল নিরাপত্তা আইনসহ বিভিন্ন ধারায় কোতোয়ালী থানায় মামলা দায়ের করেন জেলা হিসাবরক্ষণ কর্মকর্তা সাইফুল ইসলাম। সেই মামলার প্রেক্ষিতে পুলিশ রাতেই তাদেরকে গ্রেফতার করেছেন। মঙ্গলবার বিকেলে তাদেরকে আদালতের মাধ্যমে জেলহাজতে পাঠানো হয়েছে। এ ব্যাপারে দিনাজপুর কোতয়ালি থানায় একটি মামলা দায়ের হয়েছে। মামলা নং-০১, তারিখ- ০১/০২/২০২১