(দিনাজপুর২৪.কম) ঢালিউড সুপারস্টার শাকিব খান ও চিত্রনায়িকা অপু বিশ্বাসের বিয়ে নিয়ে পুরো দেশজুড়ে নানা গুঞ্জন এতদিন রটেছে। কেউ বলেছে তাদের বিয়ে হয়নি আবার কেউ বলেছে শাকিব-অপুর একটি বাচ্চা রয়েছে। তবে এসব খবর শুধু গুঞ্জনেই শোনা যায়। শাকিব কিংবা অপু কারোর মুখ থেকে কিছুই আসেনি। এমনকি টানা দশ মাস লোকচক্ষুর অন্তরালে ছিলেন অপু। অবশ্য সব জল্পনা-কল্পনার অবসান ঘটিয়ে আজ সোমবার একটি টিভি চ্যানেলে দেয়া সাক্ষাৎকারে শাকিবের সঙ্গে তার সম্পর্কের কথা স্বীকার করেছেন। অপু জানান, শাকিবের সঙ্গে তার বিয়ে হয়েছে। শুধু তাই নয়। সেটা হয়েছিল ২০০৮ সালের ১৮ই এপ্রিল। শাকিব-অপুর সংসারে একটি ছেলেও রয়েছে। কিন্তু বিয়ে সন্তান এই সব বিষয় এতদিন শাকিব অপুকে গোপন রাখতে বলেছেন। অপু বলেন, আমার সঙ্গে শাকিবের বিয়ে হয়েছে। আমি মুসলিম ধর্ম গ্রহণ করেছি। এখন আমার নাম অপু ইসলাম খান। শাকিবের কথাতে আমি বিয়ের কথা গোপন করেছি। তার ক্যারিয়ারের কথা ভেবে আমি সব ছাড় দিয়ে গিয়েছি। কিন্তু আমার পাশে শাকিব ছিল না। এসব কথা বলতেই কান্নায় ভেঙে পড়েন অপু। সে সঙ্গে আরো বলেন, আমার ছেলে সন্তান হয়েছে। ইন্ডিয়াতে  সে সন্তানের জন্ম হয়। কিন্তু এমন একটা সময় শাকিব আমার পাশে ছিল না। শুধু তাই নয়, আমার সন্তানকে লুকিয়ে রাখতে বলেছিল। কলকাতার একটি হাসপাতালে ২৭শে সেপ্টেম্বর ২০১৬ শাকিব-অপুর এই সন্তানের জন্ম হয়। তার নাম রাখা হয় আব্রাহাম খান জয়। বিস্তারিত আসছে…. -ডেস্ক