(দিনাজপুর২৪.কম) সংবাদপত্রের স্বাধীনতা ছাড়া গণতন্ত্র অর্থহীন বলে মন্তব্য করেছেন প্রধান বিচারপতি সুরেন্দ্র কুমার সিনহা। তিনি আরও বলেছেন, বিচার বিভাগ স্বাধীন না হলে রাষ্ট্রে সুশাসন প্রতিষ্ঠিত হয়না। বুধবার রাজধানীর বাংলা একাডেমীর আবদুর করিম সাহিত্য বিশারদ মিলনায়তনে দৈনিক ‘প্রতিদিনের সংবাদ’ পত্রিকা আয়োজিত অনুষ্ঠানে প্রধান অতিথির বক্তব্যে এসব কথা বলেন তিনি। ‘সম্প্রীতি সমৃদ্ধির নবযাত্রা’ এই স্লোগানকে ধারণ করে গতকাল নতুন রূপে যাত্রা শুরু করেছে এ দৈনিকটি। অনুষ্ঠানে প্রধান বিচারপতি বিচার বিভাগ, মানবাধিকার, সুশাসনসহ রাষ্ট্রের প্রতিটি ক্ষেত্রে গণমাধ্যমের ভূমিকার বিষয়টি উল্লেখ করেন। তিনি বলেন, গণতান্ত্রিক শাসন ব্যবস্থায় প্রকৃত সুন্দর হলো বাক স্বাধীনতা ও ব্যাক্তি স্বাধীনতা। সংবাদপত্রের স্বাধীনতা ব্যাতিত গণতন্ত্র অর্থহীন। তিনি বলেন, রাষ্ট্র যখন ব্যাক্তি স্বাধীনতা, বাক স্বাধীনতা, বিচার বিভাগের স্বাধীনতা নিশ্চিত করতে পারে-তখনই বলা যায়-একটি স্বাধীন রাষ্ট্রে গণতন্ত্র গুণগত ও দৃঢ়ভাবে প্রতিষ্টিত হয়েছে। প্রধান বিচারপতি বলেন, সার্বজনীন মানবাধিকার ঘোষণা ও আমাদের সংবিধানে ৩৯ অনুচ্ছেদে চিন্তা ও বিবেকের স্বাধীনতা এবং সংবাদপত্রের স্বাধীনতা সংবিধান কর্তৃক স্বীকৃত। মানুষের অধিকার প্রতিষ্ঠায় সমাজ ও রাষ্ট্রের ভারসাম্য রক্ষা ও শ্রেণী বিভাগ দূর করতে সামাজিক নিরাপত্তার পাশাপাশি মানুষের মানবিক মর্যাদাবোধ সমুন্নত রাখতে হয়। নাগরিকের নিরাপত্তা বজায় রাখার বিষয়টি সংবিধান ও প্রচলিত আইনে বহুভাবে বলা আছে। তিনি বলেন, মানবিক মর্যাদা প্রতিষ্ঠা করতে হলে দরকার সামাজিক নিরাপত্তা বিধান করা। এক্ষেত্রে সাংবাদিক সমাজ গুরুত্বপূর্ণ ভূমিকা পালন করতে পারেন। আইনের শাসন প্রতিষ্ঠা সহজ কাজ নয় উল্লেখ করে প্রধান বিচারপতি বলেন, বিচার বিভাগ স্বাধীন না হলে রাষ্ট্রে সুশাসন প্রতিষ্ঠিত হয়না। এক্ষেত্রে গণমাধ্যম সময়পোযোগী সংবাদ প্রকাশ করে বিচার বিভাগের যুগান্তকারী সংস্কার সাধনে গুরুত্বপূর্ণ ভূমিকা পালন করছে।-ডেস্ক