(দিনাজপুর২৪.কম) ‘গল্পটা আমার কাছে বেশ ভালো লেগেছে। আলমগীর নির্দেশক হিসেবে পরীক্ষিত একজন। আশা করছি এটি অতীতের চেয়েও অনেক ভালো মানের একটি সিনেমা হবে।’ কথাগুলো বলেছেন খ্যাতিমান অভিনেতা ও পরিচালক সৈয়দ হাসান ইমাম। শনিবার দুপুর ১টা ৩০ মিনিটে বিএফডিসির চার নম্বর ফ্লোরে একটি দৃশ্য ধারনের মধ্যদিয়ে আলমগীর তার নির্দেশিত নতুন চলচ্চিত্রের শুটিং শুরু করেন। এর আগে বিসমিল্লাহ পড়ে চলচ্চিত্রটির শুভযাত্রা করেন সঙ্গীতশিল্পী রুনা লায়লা ও বরেণ্য অভিনেতা, নির্দেশক সৈয়দ হাসান ইমাম। এই সময় আরও উপস্থিত ছিলেন চলচ্চিত্রটির নির্দেশক ও অভিনেতা আলমগীর, আঁখি আলমগীর, চিত্রনায়ক আরিফিন শুভ, ঋতুপর্ণা সেনগুপ্ত এবং আঁখি আলমগীরের দুই কন্যা স্নেহা ও আরিয়া। আগামী ৩০ সেপ্টেম্বর পর্যন্ত চলচ্চিত্রটির শুটিং চলবে বলে জানিয়েছেন আলমগীর। এর কাহিনী, সংলাপ ও চিত্রনাট্য রচনা করেছেন তিনি নিজেই। এতে আলমগীরের বিপরীতে অভিনয় করবেন চম্পা। রুনা লায়লা বলেন, ‘একটি সিনেমার গল্প’র জন্য শুভ কামনা। এই চলচ্চিত্রের মধ্যদিয়েই একজন সুরকার হিসেবে আমার অভিষেক হলো। গানটি লিখেছেন গাজী মাজহারুল আনোয়ার এবং গেয়েছেন আঁখি আলমগীর। চলচ্চিত্রটির অন্যান্য গানগুলো চমৎকার। সবমিলিয়ে দারুণ গল্পের একটি সিনেমা একটি সিনেমার গল্প।’ আরিফিন শুভ বলেন, ‘জীবনে প্রথম একই ফ্রেমে আলমগীর স্যারের সঙ্গে কাজ করতে যাচ্ছি। তাও আবার তারই নির্দেশিত চলচ্চিত্রে। এটা আমার জন্য আমার অভিনয় ক্যারিয়ারের জন্য অনেক বড় একটি অর্জন বলেই আমি বিবেচনা করছি। আমি আমার সর্বোচ্চ চেষ্টা দিয়ে নিজের চরিত্রটি ফুটিয়ে তোলার চেষ্টা করবো।’ ঋতুপর্ণা বলেন, ‘এর আগে আলমগীর স্যারের সঙ্গে একটি চলচ্চিত্রে কাজ করেছি। তিনি অনেক বড় মাপের একজন অভিনেতা। অনেক বছর পর তার নির্দেশনায় এবার কাজ করতে যাচ্ছি। পাশাপাশি তার সঙ্গে একই ফ্রেমে অভিনয়ও করবো। তাই ভীষণ ভালোলাগা কাজ করছে। এফডিসিতে এসে পুরোনো দিনের অনেক কিছুই মনে পড়ছে। মনে পড়ছে নায়করাজ রাজ্জাক স্যারের কথা, মান্নার কথা। সবমিলিয়ে একটি সিনেমার গল্প আমার কাছে স্মৃতি হাতড়ে ফেরার কাজও বটে। আশা করছি এটি খুব ভালো একটি সিনেমাই হবে।’ -ডেস্ক