VAR- lal card-dinajpur24

(দিনাজপুর২৪.কম) ফ্রান্স ক্লাব পিএসজির জালে ম্যাচের শুরুতে গোল দিয়ে দিলেন ফ্রান্স তারকা করিম বেনজেমা। দলকে এনে দিলেন ১-০ গোলের লিড। প্রথমার্ধে ম্যাচের লাগামও লস ব্লাঙ্কোসরা নিজেদের হাতে রাখে। ঘরের মাঠ সান্তিয়াগো বার্নাব্যুতে পিএসজিকে পাত্তাই দেয়নি রিয়াল। কিন্তু ম্যাচের ৪২ মিনিটে গোল করার দারুণ এক সুযোগ পেয়ে যায় পিএসজি। ম্যাচের নিয়ন্ত্রণ নেওয়ারও। কিন্তু ভিডিও অ্যাসিস্ট্যান্ট রেফারি (ভিএরআর) সেই সম্ভাবনা ঠেকিয়ে দিল।

মাঝ মাঠ থেকে মার্সেলোর কাছ থেকে বল কেড়ে নিয়ে পিএসজির ইদ্রাসি গুইয়া তা ডি মারিয়ার উদ্দেশ্যে ছাড়েন। ডি মারিয়া লম্বা করে বল বাড়ান রিয়াল মাদ্রিদের বক্সের দিকে। বল দখলের লড়াইয়ে থাকা মাউরো ইকার্দিকে বক্স লাইনের কাছে ফাউল করেন রিয়াল গোলরক্ষক থিবো কর্তোয়া। রেফারি ফাউলের বাঁশি বাজান। অনৈতিকভাবে ইকার্দিকে ফাউল করায় কর্তোয়াকে অবাক করে লাল কার্ড দেখান রেফারি। হলুদ কার্ডই যেখানে হতে পারত কর্তোয়ার সম্ভব্য শাস্তি।

এরপর রেফারি ধন্দে পড়ে যান কর্তোয়া বক্সের বাইরে ইকার্দিকে ফাউল করেছেন। না-কি বক্সের ভেতরে। বক্সের ভেতরে হলে পেনাল্টি। বাইরে হলে ফ্রি কিক তা বলার অপেক্ষা রাখে না। নিশ্চিত হওয়ার জন্য ভিএআরের সাহায্য নেন রেফারি। এরপর পত্যাহার করে নিলেন কর্তোয়ার লাল কার্ড। সঙ্গে ইর্কাদিকে করা রিয়াল গোলরক্ষকের ফাউলও। পিএসজি বঞ্চিত হলো ফ্রি কিক কিংবা সম্ভব্য পেনাল্টি থেকে গোল করার সুযোগ।

কারণ পিএসজি মিডফিল্ডার ইদ্রাসি গুইয়া মাঝমাঠে মার্সেলোর সঙ্গে বল দখলের লড়াইয়ে নামনে। বল নিজের নিয়ন্ত্রণে নিতে তিনি মার্সেলোকে দুই হাত দিয়ে ধাক্কা দেন। রেফারি সেটা খেয়ালই করেননি। ইদ্রাসি ওই বলই ডি মারিয়াকে পাস দেন। ডি মারিয়া দেন ইকার্দিকে। রিয়ালের ঢাল হয়ে দাঁড়াল ভিএআর। কর্তোয়ার লাল কার্ডের সঙ্গে রিয়ালের পেনাল্টিও ঠেকিয়ে দিল খেলার মাঠে ঢুকে যাওয়া এই প্রযুক্তি। -ডেস্ক