(দিনাজপুর২৪.কম) কেবল পর্তুগাল নয়; বিশ্ব ফুটবলের মহাতারকা তিনি। তাকে এমন সম্মানে ভূষিত করা আশ্চর্যের কিছু নয়। হ্যাঁ, জুভেন্তাসের পর্তুগিজ সুপারস্টার ক্রিশ্চিয়ানো রোনাদলোর নামে এবার এস্তাদিও হোসে আলভালাদের স্টেডিয়ামের নামকরণ করতে যাচ্ছে স্পোর্টিং লিসবন ক্লাব।

ক্লাবটির সভাপতি সম্প্রতি এমনটাই জানিয়েছেন। এই স্পোর্টিংয়ের হয়েই পেশাদারি ফুটবলে প্রথম খেলেছিলেন রোনালদো। তিনি ক্লাবটিতে যোগ দেওয়ার কিছুদিন পরেই বর্তমান স্টেডিয়ামটির উদ্বোধন করা হয়েছিল।

এক বিবৃতিতে স্পোর্টিংয়ের সভাপতি ফ্রেদেরিকো ভারান্দাস বলেছেন, ‘আমাদের স্টেডিয়ামের নাম রোনালদোর নামে রাখার একটা পরিকল্পনা হাতে নিয়েছি। এটা হলে আমাদের জন্য অনেক গর্বের একটা বিষয় হবে।

আমাদের ক্লাবের ইতিহাসে ক্রিশ্চিয়ানো অসাধারণ এক চরিত্র। বিশ্বের সবচেয়ে সেরা খেলোয়াড়ের নাম যে আমাদের সঙ্গে যুক্ত, এ জন্য আমরা অনেক গর্বিত। আমি চাই রোনালদো আমাদের তরুণ খেলোয়াড়দের আদর্শ হয়ে থাকুক।’

২০০২ সালে ম্যানচেস্টার ইউনাইটেডের সঙ্গে প্রীতি ম্যাচ খেলে স্টেডিয়ামের উদ্বোধন করেছিল স্পোর্টিং। ওই ম্যাচে খেলেছিলেন কিশোর বয়সের রোনালদো। ওই ম্যাচে তার ভয়ংকর পারফর্মেন্স দেখে বিরতির সময়েই ম্যান ইউয়ের ফুটবলাররা তখনকার কোচ স্যার অ্যালেক্স ফার্গুসনের কাছে দাবি জানান যে, রোনালদোকে যেভাবেই হোক ম্যান ইউতে আনতেই হবে। এরপর ম্যানচেস্টার ইউনাইটেড, রিয়াল মাদ্রিদ মাতিয়ে সিআর সেভেন এখন জুভেন্তাসে।

সর্বশেষ ইউরো বাছাইপর্বে লুক্সেমবার্গের বিপক্ষে গোল করে ক্লাব ও জাতীয় দল মিলিয়ে মোট ৬৯৯ গোল করে ফেলেন রোনালদো। আর একটি গোল করলেই ৭০০ গোলের মাইলফলক ছুঁয়ে পেলে, জার্ড মুলার, রোমারিওদের পাশে নাম লেখাবেন তিনি। -ডেস্ক