(দিনাজপুর২৪.কম) রাশিয়া ও ক্রিমিয়ার মধ্যবর্তী কের্চ প্রণালীতে দুটি জাহাজে লাগা আগুনে মৃতের সংখ্যা বেড়ে ১৪ জনে দাঁড়িয়েছে। রাশিয়ার জরুরি বিভাগের বরাতে এমনটি জানিয়েছে বার্তা সংস্থা তাস, খবর রয়টার্সের। আগুন লাগা জাহাজ দুটির মধ্যে ভারতীয়, তুর্কি ও লিবীয় ক্রু সদস্য ছিল বলে মঙ্গলবার জানিয়েছে প্রেস ট্রাস্ট অব ইন্ডিয়া (পিটিআই)।

ভারতীয় সংবাদ সংস্থাটির খবরে বলা হয়েছে, সোমবার রাশিয়ার জলসীমায় জাহাজ দুটিতে আগুন লাগে। দুটি জাহাজই তাঞ্জানিয়ার পতকাবাহী। একটি জাহাজ তরল প্রাকৃতিক গ্যাসবাহী (এলএনজি), অপরটি তেলবাহী ট্যাঙ্কার। একটি জাহাজ থেকে অপরটিতে জ্বালানি লোড করার সময় আগুনের সূত্রপাত হয়।

এর মধ্যে ক্যান্ডি নামের একটি জাহাজে ১৭ জন ক্রু সদস্য ছিল। এদের নয় জন তুরস্কের নাগরিক ও অপর আট জন ভারতের নাগরিক। মায়েস্ত্রো নামের অপর জাহাজটিতে ১৫ জন ক্রু সদস্য ছিল। তাদের সাত জন তুরস্কের, সাত জন ভারতের ও অপর একজন লিবীয় বলে রাশিয়ার মেরিটাইম কর্তৃপক্ষের উদ্ধৃতি দিয়ে জানিয়েছে বার্তা সংস্থা তাস।

রাশিয়ার মেরিটাইম এজেন্সির মুখপাত্র বলেছেন, “সম্ভবত একটি বিস্ফোরণ ঘটেছে (একটি জাহাজে) । এরপর আগুন অন্য জাহাজেও ছড়িয়ে পড়ে। উদ্ধারকারী একটি টাগবোট ঘটনাস্থলের পথে রয়েছে।”

জাহাজ দুটি থেকে ঝাঁপিয়ে পড়ে কয়েকজন নাবিক নিজেদের বাঁচাতে পেরেছেন। শেষ খবর পাওয়া পর্যন্ত সাগর থেকে ১২ জনকে উদ্ধার করা হয়েছে। ছয় নাবিক নিখোঁজ রয়েছেন বলে জানিয়েছেন মেরিটাইম এজেন্সির মুখপাত্র।

আবহাওয়ার অবস্থা খারাপ থাকায় উদ্ধারকাজে বিঘ্ন ঘটার কথা জানিয়েছে গণমাধ্যম। কৃষ্ণ সাগর ও আজভ সাগরকে সংযোগকারী কের্চ প্রণালী রাশিয়া ও ইউক্রেইনের একটি প্রধান জলপথ। উভয় দেশের জন্যেই এ জলপথটি কৌশলগতভাবে অনেক গুরুত্বপূর্ণ। -ডেস্ক