(দিনাজপুর২৪.কম) বাংলাদেশ ব্যাংক জানিয়েছে, ব্যাংকিং চ্যানেলে রপ্তানির বিপরীতে ১০ হাজার ১০ কোটি টাকা এসেছে জার্মানি থেকে। যা গত অর্থবছরের শেষ প্রন্তিকে (এপ্রিল-জুন) অন্যান্য দেশের তুলনায় সবচেয়ে বেশি।

জানা গেছে, আলোচ্য তিন মাসে তৈরি পোশাক খাত থেকে সবচেয়ে বেশি রপ্তানি আয় হয়েছে জার্মানি থেকে। এ সময়ে ৯ হাজার ৫৩১ কোটি টাকার তৈরি পোশাক কিনেছে দেশটি।

এর মধ্যে ১৫৩ কোটি টাকার হোম টেক্সটাইল, ১১৪ কোটি টাকার চামড়াত পণ্যসহ মোট ১০ হাজার ১০ কোটি টাকার বাংলাদেশি পণ্য কিনেছে তারা।

রপ্তানিকৃত পণ্যসমূহের মধ্যে তৈরি পোশাক খাতের রপ্তানি আয় ৫৩ হাজার ৯৭৪ কোটি টাকা। যা মোট রপ্তানি আয়ের শতকরা ৮৬ দশমিক ৫ ভাগ। পাট ও পাটজাত পণ্যের রপ্তানি আয় ১৬ হাজার ৬৯৫ কোটি টাকা, চামড়া ও চামড়াজাত পণ্য খাতের রপ্তানি আয় ১ হাজার ২৩১ কোটি টাকা।

দেশভিত্তিক রপ্তানি আয়ের মধ্যে প্রধান পাঁচটি দেশ হলো জার্মানি, যুক্তরাষ্ট্র, যুক্তরাজ্য, স্পেন এবং ফ্রান্স। দেশগুলো থেকে আয় হয়েছে যথাক্রমে ১০ হাজার ১০ কোটি টাকা, ৯ হাজার ৭৮৬ কোটি টাকা, ৬ হাজার ৬০৮ কোটি টাকা, ৪ হাজার ৩৮০ কোটি টাকা এবং ৩ হাজার ৯৬৬ কোটি টাকা।

মোট রপ্তানি আয়ের প্রায় ৫৬ ভাগই এসেছে এই পাঁচ দেশ থেকে। তথ্য অনুযায়ী একই সময়ে অঞ্চলভিত্তিক বিবেচনায় ইউরোপিয়ান ইউনিয়ন থেকে সবচেয়ে বেশি আয় হয়েছে এবার। মোট রপ্তানি আয়ের ৫৯ শতাংশই এসেছে এই অঞ্চল থেকে।

উল্লেখ, ইউরোপে অর্থনৈতিকভাবে সমৃদ্ধ দেশ জার্মানির সাথে বাংলাদেশের বাণিজ্যিক সম্পর্ক দীর্ঘদিনের। বাংলাদেশের স্বাধীনতা যুদ্ধের পর পূর্ব জার্মানি বিশ্বের তৃতীয় এবং ইউরোপের প্রথম দেশ, যারা বাংলাদেশকে সরকারিভাবে স্বীকৃতি দিয়েছিল। -ডেস্ক