দীর্ঘদিন হলো ভেঙ্গে পড়ে আছে পেকুয়া-অভিরামপুর রাস্তায় বংশীনগর খালের উপর ব্রিজটি। ছবি: সংগৃহীত

(দিনাজপুর২৪.কম) টাঙ্গাইলের মির্জাপুর উপজেলার ১৩ নং বাঁশতৈল ইউনিয়নের পেকুয়া-অভিরামপুর রাস্তায় বংশীনগর খালের উপর ব্রিজটি ভেঙ্গে গেছে। দীর্ঘদিন যাবত ব্রিজটি ব্যবহারের অনুপযোগী হওয়ায় যোগাযোগ বিচ্ছিন্ন হয়ে তিন উপজেলার প্রায় ৩৫টি গ্রামের জনগণ দুর্ভোগে পড়েছেন।গায়রাবেতিল উচ্চ বিদ্যালয়ের সহকারী শিক্ষক মো. মোতালেব হোসেন জানান, দুর্যোগ ব্যবস্থাপনা ও ত্রাণ মন্ত্রণালয়ের আর্থিক সহযোগিতায় স্থানীয় প্রকৌশল অধিদপ্তর ৯০ এর দশকে প্রায় ১৫ মিটার ব্রিজটি নির্মাণ করেন। দুর্গম পাহাড়ি অঞ্চল হিসেবে মির্জাপুর উপজেলা ও পার্শ্ববর্তী সখীপুর এবং কালিয়াকৈর উপজেলার ৩০/৩৫টি গ্রামের লোকজন পেকুয়া-অভিরামপুর রাস্তা দিয়ে চলাচল করে আসছে। এর আশপাশের পেকুয়া, তক্তারচালা, কাইতলা, তালতলা, গায়রাবেতিল, ইনতখাচালা, বালিয়াজান, বংশীনগর, অভিরাম, বাঁশতৈল, নয়াপাড়া, হতিয়া, রাজাবাড়ি এবং সখীপুর ও কালিয়াকৈর উপজেলার হাজারো লোকজন ওই রাস্তা দিয়ে যাতায়াত করে আসছেন।বিড়ম্বনার শিকার হচ্ছে স্কুল-কলেজ গামী শিক্ষার্থীরাও। ব্রিজটি ভেঙ্গে যাওয়ায় কয়েক মাইল ঘুরে এলাকাবাসীকে গোড়াই-সখীপুর আঞ্চলিক সড়কে ও জেলা সদর টাঙ্গাইল এবং উপজেলা সদর মির্জাপুরে যাতায়াত করতে হচ্ছে। এতে করে তাদের সময় ও আর্থিক ব্যয় বেশি হচ্ছে। ব্রিজটি দ্রুত মেরামত ও নতুন ভাবে নির্মাণের জন্য দাবী জানিয়েছেন এলাকাবাসী।উপজেলা প্রকৌশলী মোহাম্মদ আরিফুর রহমানের সঙ্গে যোগাযোগ করা হলে তিনি বলেন, তারা অভিযোগ পেয়েছেন। নতুন ভাবে ব্রিজ নির্মাণের জন্য প্রয়োজনীয় বরাদ্দ চেয়ে সংশ্লিষ্ট অধিদপ্তরে পাঠানো হয়েছে। বরাদ্দ পাওয়া গেলে দ্রুত ব্রিজটি নির্মাণ করা হবে।-ডেস্ক