(দিনাজপুর২৪.কম) আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক এবং সড়ক পরিবহন ও সেতুমন্ত্রী ওবায়দুল কাদের বলেছেন, মনোনয়নপত্র বাতিল নির্বাচনী আইন লঙ্ঘনের কারণেই হয়েছে। এটা নির্বাচন কমিশনের (ইসি) বিষয়। এখানে আওয়ামী লীগের হাত নেই। সোমবার (০৩ ডিসেম্বর) সকালে ধানমন্ডিতে আওয়ামী লীগ সভাপতি শেখ হাসিনার রাজনৈতিক কার্যালয়ে সাংবাদিকদের ব্রিফিংয়ে একথা বলেন দলের সাধারণ সম্পাদক ও সেতুমন্ত্রী ওবায়দুল কাদের। ওবায়দুল কাদের বলেন, কোনও অবস্থাতেই আমরা একতরফা অবস্থা সৃষ্টি করে নির্বাচনে লড়াই করতে চাই না। এটা একপেশে খেলা হোক, একপেশে ম্যাচ হোক- এটা আমরা চাই না। তিনি আরও বলেন, গণতন্ত্র হচ্ছে দুই চাকার বাইসাইকেল। একটা চাকার অপজিশন আরেকটা চাকা। এখানে কে অপজিশন হবে সেটা গণমানুষ ঠিক করবে। কিন্তু এখানে অন্যদের ঠেকিয়ে, আটকে রেখে আমরা একা নির্বাচন করব, ফাঁকা মাঠে গোল দেব, প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা মোটেই এ ধরনের ইচ্ছে পোষণ করেন না। এটা আমি আপনাদের মাধ্যমে প্রতিপক্ষ দলগুলো ও জনগণকে আশ্বস্ত করতে চাই।

সেতুমন্ত্রী বলেন, আমাদের তো এই দেশেই থাকতে হবে। জনগণের মাঝেই থাকতে হবে। আজকে একটা কথা বললাম রাজনীতিবিদ হিসেবে, একটা রাজনৈতিক দলের গুরুত্বপূর্ণ পদে থেকে, কিছুদিন পর সেই কথার যদি ব্যত্যয় ঘটে, তাহলে মানুষ তো এটা মনে রাখবে।

তিনি বলেন, কাজেই ফাঁকা বুলি, প্রতিশ্রুতি দিতে চাই না। যা সত্য তাই বলছি, আমরা একটা ক্রেডিবল ইলেকশন করতে চাই, একটা বিশ্বাসযোগ্য নির্বাচন আমরা কতে চাই। এই নির্বাচনকে ঘিরে দেশে-বিদেশে সবার দৃষ্টি রয়েছে। কোনো অবস্থাতেই এই নির্বাচনের পরিবেশ ক্ষুণ্ণ হোক সেটা আমরা চাই না।

সেতুমন্ত্রী বলেন, আমার চেষ্টা করবো কোনোভাবে যেন লেভেল প্লেয়িং ফিল্ড নষ্ট না হয়। কোনো অবস্থাতেই একতরফা অবস্থা তৈরি করে নির্বাচন করতে চাই না। অপজিশন একটি চাকা। মানুষ সিদ্ধান্ত নেবে। আমরা ফাঁকা মাঠে গোল দেবো, প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা এটা কোনোভাবেই চান না। -ডেস্ক