(দিনাজপুর২৪.কম) ভারতের বিহারে দিল্লিগামী সীমাঞ্চল এক্সপ্রেসের ৯টি বগি লাইনচ্যুত হয়ে অন্তত ছয়জন নিহত হয়েছেন। রোববার ভোরে হাজিপুরের কাছে এ দুর্ঘটনা ঘটে। দেশটির রেল মন্ত্রণালয়ের পক্ষ থেকে ঘটনার সত্যতা নিশ্চিত করা হয়েছে। তারা বলছে, ক্ষতিগ্রস্ত ট্রেনটির উদ্ধার কাজের জন্য বরাউনি শোনপুর থেকে রিলিফ ট্রেন ইতিমধ্যেই রওনা দিয়েছে হাজিপুরের দিকে। মন্ত্রলয় থেকে তিনটি হেল্পলাইন নাম্বার চালু করার কথা বলা হয়েছে। এই দুর্ঘটনায় অসংখ্য ব্যক্তি গুরুতর আহত হয়েছেন। প্রত্যক্ষদর্শীরা জানিয়েছেন, উদ্ধার কাজ শুরু হলে মৃতের সংখ্যা আরও বাড়তে পারে।

রেল সূত্রের খবর, যোগবাণী-আনন্দবিহার টার্মিনাল সীমাঞ্চল এক্সপ্রেসের যআত্রীদের ভোর ৩ টা ৫৮ মিনিট নাগাদ মারাত্মক একটা শব্দে ঘুম ভেঙে যায়। সেই সময়ই শাহাদাই বুজুর্গের কাছে ট্রেনটি লাইনচ্যুত হয়ে পড়ে।

শোনপুর ডিভিশন সূত্রে খবর, ৩.৫২ মিনিট নাগাদ মেহনার রোড দিয়ে ট্রেনটি যাচ্ছিল। তার কিছুক্ষণ পরই এই দুর্ঘটনাটি ঘটেছে। শোনপুর ও বরাউনি থেকে চিকিৎসকের দল ঘটনাস্থলে পৌঁছে গিয়েছেন। স্লিপারে এস ৮, এস ৯, এস ১০ এই তিনটি বগি, একটি জেনারেল বগি, একটি শীতাতপ নিয়ন্ত্রিত বগি (বি৩) লাইনচ্যু বগিগুলির মধ্যে রয়েছে, জানিয়েছেন পূর্ব রেলওয়ের মুখপাত্র রাজেশ কুমার।

এক প্রত্যক্ষদর্শী জানান, দিল্লি-বিহার রুটের ট্রেনগুলি অতিরিক্ত যাত্রী পরিবহণ করে। এই ট্রেনে অসংখ্য যাত্রীদেরই রিজার্ভেশনও থাকে না। শুধু জেনারেল টিকিট কেটেই অসংখ্য ব্যক্তি ট্রেনে যাতায়াত করেন। এর ফলে রেলমন্ত্রকের তরফে এই দুর্ঘটনার পর আহত কিংবা নিহতদের পরিচয় খুঁজে পেতেও সমস্যা হচ্ছে। -ডেস্ক