(দিনাজপুর২৪.কম) ২০০৪ সালে চট্টগ্রামে বাংলাদেশকে মাত্র ২৬ ওভার চার বলের মধ্যে অল আউট করে দিয়েছিল ভারত। এবার বিরাট কোহলিও তেমন কিছুর স্বপ্নই দেখছিলেন। কিন্তু সেটা হল না। দিনের বাকি ৩০ ওভার খেলার কথা থাকলেও ১৫ ওভারেই বাংলাদেশের সতর্ক সূচনায় ড্র মেনে নিলো ভারত। তার মধ্যে স্কোর বোর্ডে জমা হয়েছে ২৩ রান। এর আগে লাঞ্চের পর নিজেদের প্রথম ইনিংসে ভারতের সামনে ফতুল্লার খান সাহেব ওসমান আলী স্টেডিয়ামে ২৫৬ রানে অল আউট হয়ে যায় বাংলাদেশ। ইমরুল কায়েস ৭২ ও লিটন কুমার দাস ৪৪ রান করেন।

৮৭ রান দিয়ে পাঁচটি উইকেট পান ভারতের রবীচন্দ্রন অশ্বিন। ভারতের বাইরে এটাই তার প্রথম পাঁচ উইকেট পাওয়া। আর এর মধ্য দিয়েই ওয়াকার ইউনুসের সাথে উপমহাদেশের বোলারদের মধ্যে দ্রুততম শত উইকেট পাওয়ার রেকর্ড গড়ে ফেললেন তিনি।

কোহলির আশা ছিল এই অশ্বিনই দ্বিতীয় ইনিংসে ধসিয়ে দেবেন বাংলাদেশকে। তবে, শেষ অবধি সেই আশা ধুলিস্যাত করে দেন তামিম ও ইমরুল! -(ডেস্ক)