(দিনাজপুর২৪.কম) ভারতের উত্তর প্রদেশের লক্ষ্ণৌয়ের ছারবাগ এলাকায় একটি হোটেলে অগ্নিকাণ্ডে ৫ জন নিহত হয়েছেন। এ ঘটনায় গুরুতর আহত হয়েছেন তিন জন। তাদের স্থানীয় সিভিল হাসপাতালে ভর্তি করানো হয়েছে। তাদের শরীরের ৯০-১০০ শতাংশ পুড়ে গেছে। অন্য আরও দুই জনের অবস্থাও সঙ্কটজনক হওয়ায় তাদের এসআইপিএস বার্নস স্পেশালিটি হাসপাতালে স্থানান্তর করা হয়েছে। পুলিশ জানায়, মঙ্গলবার সকালের দিকে শর্ট সার্কিটের কারণেই ছারবাগের এসএসজে ইন্টারন্যাশনাল বার এন্ড হোটেল বেসমেন্টে প্রথম আগুন লাগে। মুহূর্তের মধ্যেই সেই আগুন হোটেলের অন্য তলায় এবং পাশের ভবনগুলিতেও ছড়িয়ে পড়ে। অগ্নিকাণ্ডের ফলে সম্পূর্ণ ভস্মীভূত হয়ে যায় পাশ্ববর্তী হোটেল বিরাট ইন্টারন্যাশনাল।

স্থানীয় বাসিন্দাদের অভিযোগ, অগ্নি নির্বাপনের কোন ব্যবস্থাই ছিল না দুর্ঘটনাগ্রস্থ ওই হোটেলে। উত্তরপ্রদেশ পুলিশের আই জি (লখনউ) এস পান্ডে জানান, ওই ভবন থেকে অর্ধ শতাধিকের বেশি মানুষকে উদ্ধার করা হয়েছে। অগ্নিকাণ্ডের কারণ এখনও জানা যায়নি। তদন্তে হোটেল কর্তৃপক্ষের কোন গাফিলতি পাওয়া গেলে দোষীদের বিরুদ্ধে কঠোর পদক্ষেপ নেওয়া হবে।

লক্ষ্ণৌয়ের সিনিয়র পুলিশ সুপার দীপক কুমার জানান, প্রত্যক্ষদর্শীদের বিবরণ অনুযায়ী সকাল সাড়ে পাঁচচা নাগাদ প্রথম আগুন লাগার ঘটনা ঘটে। প্রাথমিকভাবে ধারণা করা হচ্ছে হোটেলের বেসমেন্ট থেকেই আগুন লাগে এবং ওপরের তলায় ছড়িয়ে পড়ে। শর্ট সার্কিট থেকেই এই অগ্নিকাণ্ডের ঘটনা ঘটে থাকতে পারে মনে করা হলেও প্রকৃত তদন্ত না হওয়া পর্যন্ত কোন সিদ্ধান্তে পৌঁছনো সম্ভব নয়। -ডেস্ক