dinajpur.dinajpur24(দিনাজপুর২৪.কম) দিনাজপুরের বীরগঞ্জ উপজেলার ৭নং মোহাম্মদপুর ইউপি চেয়ারম্যান ওয়াহেদুজ্জামান বাদশার বিরুদ্ধে ভিজিএফ এর ৪ হাজার ৮শ কেজি চাল আত্মসাৎ করার অভিযোগে দুদকে অনুসন্ধান শুরু করা হয়েছে।  দিনাজপুর সমন্বিত দুদক কার্যালয়ের উপ-পরিচালক আব্দুল করিম জানান, জেলা ও দায়রা জজ আদালতের ক্রিমিস মামলা নং ৩৯৬/১৫ এর আদেশবলে দুদকের একজন কর্মকর্তা নিয়োগ করে ভিজিএফ এর চাল আত্মসাৎ ঘটনার সোমবার ১ জুন থেকে অনুসন্ধান কাজ শুরু করা হয়েছে। দায়িত্বপ্রাপ্ত কর্মকর্তা অনুসন্ধান সম্পন্ন করে সত্যতার ভিত্তিতে আদালতে প্রতিবেদন দাখিল করবেন। আদালতের অনুমতি সাপেক্ষে পরবর্তী আইনগত ব্যবস্থা গ্রহণ করা হবে।  সূত্রটি জানায়, গত ১ এপ্রিল বীরগঞ্জ উপজেলার মোহাম্মদপুর ইউনিয়নের মেম্বার আব্দুল মালেক (৪৪) বাদী হয়ে ওই ইউনিয়ন চেয়ারম্যান ওয়াহেদুজ্জামান বাদশা (৫০)কে আসামী করে দিনাজপুর সিনিয়র স্পেশাল জজ আদালতে ভিজিএফ এর চাল আত্মসাৎ ঘটনার অভিযোগ এনে মামলা দায়ের করেন। বিচারক বিষয়টি দিনাজপুর সমন্বিত দুদক কার্যালয়ের উপ-পরিচালককে তদন্ত করে প্রতিবেদন দাখিলের নির্দেশ দেন। আদালতের নির্দেশ অনুযায়ী দুদক কেন্দ্রীয় কার্যালয়েং অনুমতি সাপেক্ষে ১ জন কর্মকর্তা সোমবার ১ জুন থেকে অনুসন্ধান শুরু করেছে। অভিযোগে প্রকাশ, গত বছর ২ ডিসেম্বর রাতে চেয়ারম্যান ওয়াহেদুজ্জামান বাদশা ভিজিএফ এর ৪ হাজার ৮শ কেজি চাল বিক্রি করার সময় জনতার হাতে আটক হয়। এই ঘটনায় বীরগঞ্জ উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তার নিকট অভিযোগ করা হলে তিনি তদন্ত করে প্রাথমিক সত্যতা পেয়েছেন। ওই ঘটনায় জেলা প্রশাসক কার্যালয় থেকে উক্ত চেয়ারম্যানকে প্রাথমিকভাবে সতর্ক করে দেয়া হয়। এই ঘটনায় ক্ষুব্ধ হয়ে এলাকাবাসীর পক্ষে ইউপি সদস্য আব্দুল মালেক বাদী হয়ে আদালতে মামলা করলে অনুসন্ধান কাজ শুরু হয়। –(মোঃ রিয়াজুল ইসলাম)