– প্রতীকী ছবি

(দিনাজপুর২৪.কম) ফেনীর পরশুরামে বোনের বাড়িতে বেড়াতে যাওয়া এক কিশোরীকে (১৮) বিয়ের প্রলোভন দেখিয়ে ধর্ষণের অভিযোগে পরশুরাম থানায় মামলা হয়েছে । কিশোরীর বাড়ি ছাগলনাইয়া উপজেলার দক্ষিণ সতর গ্রামে। শুক্রবার কিশোরীকে ডাক্তারী পরীক্ষার জন্য ফেনী সদর হাসপাতালে প্রেরণ করা হয়েছে ।

জানা গেছে, পরশুরাম উপজেলার মির্জানগর ইউনিয়নে বড় বোনের স্বামীর বাড়িতে কিশোরী বেড়াতে গেলে পূর্ব পরিচিত একই উপজেলার বাহারের ছেলে রাসেল (২৬) গত ২৬ জুন সন্ধ্যায় কৌশলে কিশোরীকে মধুগ্রামের কামাল ডাক্তারের খালি বাড়ির ঘরের ছাদে নিয়ে যায়। সেখানে রাসেল ও তার কয়েকজন সহযোগীসহ রাতভর কিশোরীকে ধর্ষণ করে বলে অভিযোগ।

বৃহস্পতিবার ভোরে ফজরের নামাযের জন্য মুসল্লিরা রাস্তায় বের হলে কিশোরীর চিৎকার শোনে এগিয়ে গেলে রাসেল ও তার সহযোগিরা পালিয়ে যায়।

বৃহস্পতিবার সন্ধ্যায় কিশোরী বাদি হয়ে পরশুরাম থানায় মামলা দায়ের করে। শুক্রবার সকালে কিশোরীকে ডাক্তারী পরীক্ষার জন্য ফেনী সদর হাসপাতালে প্রেরণ করা হয়েছে।

পরশুরাম থানার ডিউটি অফিসার এসআই মোঃ কামরুল বিকেলে জানান, আসামী গ্রেফতারের চেষ্টা চলছে।