(দিনাজপুর২৪.কম) প্রাণঘাতী করোনা ভাইরাসের বিস্তার বিশ্বব্যাপী অব্যাহত রয়েছে। তবে দক্ষিণ-পূর্ব এশিয়া এবং পূর্ব-ভূমধ্যসাগরীয় অঞ্চল ছাড়া বিশ্বের অন্যান্য অঞ্চলে সংক্রমণের গতি ধীর হয়েছে বা কমে এসেছে। সোমবার রাতে করোনা ভাইরাসের বিশ্ব পরিস্থিতি নিয়ে এক বিবৃতিতে এ তথ্য জানিয়েছে বিশ্ব স্বাস্থ্য সংস্থা (ডব্লিউএইচও)। খবর রয়টার্সের।

সংস্থাটির বিবৃতিতে বলা হয়- যুক্তরাষ্ট্র এখনো সবচেয়ে ক্ষতিগ্রস্ত অঞ্চল। গত সপ্তাহে বিশ্বজুড়ে করোনায় ৩৯ হাজার ২৪০ জনের মৃত্যু হয়েছে, যার ৬২ শতাংশই আমেরিকায়। এ ছাড়া বিশ্বে গত সপ্তাহে করোনায় আক্রান্তদের প্রায় অর্ধেকই যুক্তরাষ্ট্রের। রয়টার্সের পরিসংখ্যান অনুযায়ী, বিশ্বে করোনা ভাইরাসে আক্রান্ত হয়েছেন ২ কোটি ৩০ লাখের বেশি মানুষ। এতে মারা গেছেন ৮ লাখ ১১ হাজারের বেশি।

বিশ্ব স্বাস্থ্য সংস্থা বিবৃতিতে জানিয়েছে, গত ২৩ আগস্ট শেষ হওয়া সপ্তাহে বিশ্বে করোনায় আক্রান্ত হয়েছেন ১৭ লাখের বেশি মানুষ, আর মৃত্যু হয়েছে ৩৯ হাজারের বেশি। এতে দেখা গেছে, বিশ্বজুড়ে আগের সপ্তাহের তুলনায় ৪ শতাংশ সংক্রমণ ও ১২ শতাংশ মৃত্যু হ্রাস পেয়েছে। চলমান মহামারীতে দ্বিতীয় ক্ষতিগ্রস্ত অঞ্চলের তালিকায় রয়েছে দক্ষিণ-পূর্ব এশিয়া। এক সপ্তাহে এই অঞ্চলে করোনায় সংক্রমণ এবং মৃত্যু বেড়েছে যথাক্রমে ২৮ ও ১৫ শতাংশ। এই অঞ্চলের বেশিরভাগ সংক্রমণ ও মৃত্যু ঘটছে ভারতে। এ ছাড়া নেপালেও এর বিস্তার ঘটছে দ্রুত গতিতে।

অন্যদিকে ভূমধ্যসাগরীয় অঞ্চলে সংক্রমণ আগের সপ্তাহের তুলনায় ৪ শতাংশ বৃদ্ধি পেয়েছে। তবে এই অঞ্চলে করোনায় মৃত্যু টানা ছয় সপ্তাহের মতো কমে এসেছে। আগের সপ্তাহের তুলনায় লেবানন, তিউনিশিয়া ও জর্ডানে সংক্রমণ সর্বোচ্চ বৃদ্ধি পেয়েছে। আফ্রিকা মহাদেশেও করোনায় সংক্রমণ এবং মৃত্যু পূর্ববর্তী সপ্তাহের চেয়ে ৮ ও ১১ শতাংশ কমেছে। আলজেরিয়া, কেনিয়া, ঘানা, সেনেগাল এবং দক্ষিণ আফ্রিকায় সংক্রমণ কমে এসেছে। -ডেস্ক