-ফাইল ছবি

(দিনাজপুর২৪.কম) ভারতীয় সীমান্তরক্ষী বাহিনীর (বিএসএফ) গুলিতে আহত আবুল হাসেম নামে বাংলাদেশি এক যুবক চিকিৎসাধীন অবস্থায় মারা গেছেন।

কুড়িগ্রামের নাগেশ্বরী সীমান্তে গতকাল মঙ্গলবার ভোরে বিএসএফের গুলিতে আহত হওয়ার পর রংপুর মেডিকেল কলেজ (রমেক) হাসপাতালে চিকিৎসার জন্য নেয়া হয় তাকে। মঙ্গলবার রাতে সেখানেই চিকিৎসাধীন অবস্থায় মারা যান তিনি।

বিষয়টি গণমাধ্যমকে নিশ্চিত করেছেন কচাকাটা থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) মামুন অর রশিদ। নিহত আবুল হাসেম নারায়ণপুর ইউনিয়নের পাখিউড়ার কালাইর চর গ্রামের আবু বক্করের ছেলে।

স্থানীয়রা জানান, মঙ্গলবার (৩ ডিসেম্বর) ভোর রাতে আবুল হাসেমসহ ৪/৫জনের একটি দল গরু আনার জন্য আন্তর্জাতিক সীমানা পিলার-১০৩৯ এর পাশ দিয়ে ভারতের আসাম রাজ্যের সয়তাল মারী এলাকার ২০০ গজ ভেতরে যান।

এ সময় সয়তালমারী ক্যাম্পের বিএসএসফ সদস্যরা তাদের উপস্থিতি টের পেয়ে গুলি ছোড়ে। এতে মাথায় গুলিবিদ্ধ হন হাসেম। পরে সঙ্গীরা তাকে উদ্ধার করে গোপনে রমেক হাসপাতালে ভর্তি করে।

কচাকাটা থানার ওসি মামুন অর রশিদ জানান, রংপুরে ময়নাতদন্ত শেষে মরদেহ পরিবারের কাছে হস্তান্তর করা হবে। -ডেস্ক