(দিনাজপুর২৪.কম) ভারত ইস্যুতে বিএনপি’র দ্বৈত-নীতির সমালোচনা করে প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা বলেছেন, ‘২০০১ সালে পার্শ্ববর্তী দেশ ভারতের কাছে দেশের সম্পদ বিক্রির মুচলেখা দিয়ে ক্ষমতায় আসলেও তারা আজ ওই দেশেরই বিরোধিতার কথা বলছে। ভারত বিরোধীতার কথা বিএনপির মুখে মানায় না। ‘

আজ শনিবার রাজধানীর কৃষিবিদ ইনস্টিটিউট মিলনায়তনে যুব মহিলা লীগের জাতীয় সম্মেলনে প্রধান অতিথির ভাষণে এসব কথা বলেন তিনি।

প্রধানমন্ত্রী বলেন, ‘বিএনপি নেত্রী খালেদা জিয়াই ভারতের কাছে গ্যাস বিক্রির মুচলেকা দিয়ে ক্ষমতায় এসেছিলেন। তাদের মুখে ভারতবিরোধিতার কথা মানায় না। ‘

তিনি বলেন, এখন ভারতবিরোধী কথা বললেও আমেরিকান অ্যাম্বেসির লোক, ‘র’-এর লোকেরা তো হাওয়া ভবনে বসেই থাকতো এবং সেই নির্বাচনটায় সম্পূর্ণভাবে আওয়ামী লীগকে হারাবে আর এখান থেকে গ্যাস নেবে।

শেখ হাসিনা বলেন, তখন আমি বলেছিলাম যে, তারা গ্যাস পাবে না, আল্লাহতায়ালাই গ্যাস দেবে না। বিক্রি তো দূরের কথা এবং তাই হয়েছে- গ্যাস পায়নি, দিতেও পারেনি।

‘কিন্তু মুচলেখা তো দিয়েছিল, আজকে তাদের মুখে এতো ভারত বিরোধী কথা!’ উল্লেখ করেন তিনি।

যুব মহিলা লীগের সভাপতি নাজমা আক্তারের সভাপতিত্বে অনুষ্ঠিত এ সম্মেলনে বিশেষ অতিথি ছিলেন আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক ওবায়দুল কাদের।

সম্মেলনের উদ্বোধনী পর্বে বক্তৃতা করেন আওয়ামী লীগের নারী ও শিশু বিষয়ক সম্পাদক বেগম ফজিলাতুন নেছা ইন্দিরা। এছাড়া সংগঠনের সাধারণ সম্পাদকের রিপোর্ট পেশ করেন সংগঠনের সাধারণ সম্পাদক অধ্যাপক অপু উকিল।

এর আগে, প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা বেলুন ও পায়রা উড়িয়ে সম্মেলনের আনুষ্ঠানিক উদ্বোধন করেন। পরে আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক ওবায়দুল কাদের এবং যুব মহিলা লীগ নেতৃবৃন্দকে সাথে নিয়ে জাতীয় পতাকা ও দলীয় পতাকা উত্তোলন করেন তিনি। এ সময় সমবেত কণ্ঠে জাতীয় সংগীত পরিবেশিত হয়।

এসময় জাতীর পিতা বঙ্গবন্ধু, জাতীয় চারনেতা, মুক্তিযুদ্ধের শহীদ এবং গণআন্দোলনে আত্যাহুতিদানকারী যুব মহিলা লীগ নেতা-কর্মীদের স্মরণে এক মিনিট নিরবতাও পালন করা হয়। -ডেস্ক