-জুনায়েদ বাবুনগরী। পুরোনো ছবি

(দিনাজপুর২৪.কম) চট্টগ্রামের হাটহাজারী উপজেলার আল-জামিয়াতুল আহলিয়া দারুল উলূম মঈনুল ইসলাম মাদ্রাসার সহকারী পরিচালকের পদ থেকে হেফাজতে ইসলামের মহাসচিব জুনায়েদ বাবুনগরী অব্যাহতি দেওয়া হয়েছে। তার জায়গায় হাটহাজারী মাদ্রাসার সিনিয়র মুহাদ্দিস (শিক্ষক) মাওলানা শেখ আহমদকে সহকারী পরিচালক করা হয়েছে।

আজ বুধবার সকাল ১০টা থেকে বিকেল সোয়া ৩টা পর্যন্ত চলা শুরা কমিটির বৈঠক থেকে এমন সিদ্ধান্ত নেওয়া হয়।

নাম প্রকাশে অনিচ্ছুক এক হেফাজত নেতা গণমাধ্যমকে এ তথ্য নিশ্চিত করেন।  তিনি জানান, হাটহাজারী মাদ্রাসার মহাপরিচালক পদে হেফাজতে ইসলামের আমির আল্লামা আহমদ শফী আমৃত্যু থাকবেন বলে সিদ্ধান্ত নিয়েছে মাদ্রাসার শুরা কমিটি।

একটি সূত্র জানায়, উপমহাদেশে অন্যতম ধর্মীয় শিক্ষাপ্রতিষ্ঠান দারুল উলুম হাটহাজারীতে মুহাদ্দিস হিসেবে ২০১৮ সালের মে মাসে যোগ দেন শাইখুল হাদিস আল্লামা শেখ আহমদ। বাংলাদেশের কওমি অঙ্গনে হাদিসের জনপ্রিয় শিক্ষক হিসেবে পরিচিত রয়েছে তার। তিনি এর আগে চট্টগ্রামের উবাইদিয়া নানুপুর মাদরাসার শাইখুল হাদিস হিসেবে কর্মরত ছিলেন। তাকে আল্লামা শাহ আহমদ শফী’র অন্যতম খলিফা বা সহযোগী বলা হয়ে থাকে।
বৈঠকে উপস্থিত একজন শুরা সদস্য জানান, গতকাল মঙ্গলবার সকাল সোয়া ১০টার দিকে হাটহাজারী দারুল উলুম মাদ্রাসার মজলিসে শুরার বৈঠক শুরু হয়। বিকেল ৩টা পর্যন্ত চলা ওই বৈঠকের শুরুতে জুনায়েদ বাবুনগরীকে রাখা হয়নি। গণমাধ্যমে এ খবর প্রকাশ হওয়ায় পরে দুপুরে তাকে বৈঠকে ডাকা হয়। ডেকে বৈঠকের সিদ্ধান্তগুলো জানিয়ে দেওয়া হয়। এর ফলে ওই মাদ্রাসা থেকে চাকরিচ্যুত হয়ে গেলেন মাওলানা বাবুনগরী।

বাবুনগরীকে বেঠকে কেন রাখা হয়নি, এ বিষয়ে এক হেফাজতে ইসলাম নেতা জানান, বাবুনগরী শুরা কমিটির সদস্য নন, তাই তাকে বৈঠকে রাখা হয়নি।

তবে মাদ্রাসার আরেকটি সূত্র জানায়, ২০১৭ সালে অনুষ্ঠিত শুরা কমিটির বৈঠকে আল্লামা জুনায়েদ বাবুনগরীকে শুরা সদস্য করা হয়। ওই সময় তাকে মাদ্রাসার সহযোগী পরিচালক করা হয়। -ডেস্ক