আফজাল হোসেন, ফুলবাড়ী (দিনাজপুর২৪.কম)  দিনাজপুরের পার্বতীপুর উপজেলার হামিদপুর ইউনিয়নে বড়পুকুরিয়া হতে ফুলবাড়ী পর্যন্ত ৩ কিলোমিটার রাস্তার মধ্যে প্রায় ১ কিলোমিটার রাস্তা বড়পুকুরিয়া কয়লা খনি অধিগ্রহণ করার ৩ বৎসর অতিবাহিত হওয়ার পরও বিকল্প রাস্তা না থাকায় জনদূর্ভোগে পড়েছে ঐ এলাকার প্রায় ৫০ হাজার মানুষ। প্রতি বর্ষা মৌসুমে এই রাস্তাটির উপরে প্রায় ২ থেকে ৩ ফিট পানি উঠে। এতে করে ঐ এলাকার মানুষ সহ যান চলাচলে চরম দূর্ভোগে পড়ে মানুষ। রাস্তায় পানি উঠার কারনে এলাকার মৎস্য জীবিরা রাস্তার উপরে মাছ শিকার করছে। বিকল্প রাস্তা করে দেওয়ার কথা থাকলেও বড়পুকুরিয়া কয়লা খনি কর্তৃপক্ষ কোন অদৃশ্য কারণে তা করছেন না। ঐ এলাকার মানুষ বড়পুকুরিয়া কয়লা খনি বরাবর রাস্তাটি চলাচলের যোগ্য করার জন্য বার বার বলে আসলেও আজ অবধি রাস্তাটি চলাচলের যোগ্য করা হয়নি। এ ব্যাপারে বড়পুকুরিয়া কোল মাইনিং কোম্পানী লিমিটেড এর জি,এম (টিসি) মোঃ নুরুজ্জ্মাান এর সাথে মোবাইল ফোনে যোগাযোগ করা হলে তিনি জানান, অধিগ্রহণকৃত এলাকা হওয়ার কারণে বিকল্প রাস্তা হওয়ার কথা আছে এবং সেটি আমরা করব। এ ব্যাপারে উদ্ধর্তন কর্তৃপক্ষকে অবহিত করা হয়েছে। উদ্ধর্তন কর্মকর্তার অনুমতি আসলে রাস্তার কাজ শুরু করা হবে বলে তিনি জানান।