(দিনাজপুর২৪.কম)মালয়েশিয়া চলতি বছর ১.৪ মিলিয়ন ডাটাবেইজ থেকে নতুন বিজনেস-টু বিজনেস (বিবি) পদ্ধতির আওতায় বাংলাদেশ থেকে ৫ লাখ শ্রমিক নিয়োগ দেবে। প্রবাসী কল্যাণ ও বৈদেশিক কর্মসংস্থান মন্ত্রী ইঞ্জিনিয়ার খন্দকার মোশাররফ হোসেন আজ মালয়েশিয়ার পুত্রজায়ায় মালয়েশিয়ার স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী দাতো সিরি ড. আহমাদ জাহিদের সঙ্গে দ্বিপক্ষীয় বৈঠকে মিলিত হন। এ সময় মালয়েশিয়ার মন্ত্রী বাংলাদেশ থেকে শ্রমিক নিয়োগের বিষয়টি নিশ্চিত করেন। মালয়েশিয়ার স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী বলেন, বৈধ শ্রমিকদের মালয়েশিয়া স্বাগত জানাবে এবং চাকরির আবেদন অনলাইনে গ্রহণ করা হবে যা সরকারি সংস্থাসমূহ তদারকি করবে। তিনি বলেন, প্রত্যেক শ্রমিক তিন বছর মেয়াদের জন্য নিযুক্ত হবেন এবং এক বছর মেয়াদ বৃদ্ধির সুযোগ থাকবে।
এদকে বুধবার জাতীয় সংসদে সরকারি দলের সদস্য মো. হাবিবর রহমান এক প্রশ্নের জবাবে প্রবাসী কল্যাণ ও বৈদেশিক কর্মসংস্থান মন্ত্রী খন্দকার মোশাররফ হোসেন জানান, চলতি বছরের মে পর্যন্ত বাংলাদেশ থেকে ৯২ লাখ ৪১ হাজার ৩৭৭ জন কর্মী বিদেশে গেছেন। তিনি বলেন, বিদেশে গমনকারী এসব সদস্যরা জনশক্তি, কর্মসংস্থান ও প্রশিক্ষণ ব্যুরোর (বিএমইটি) ছাড়পত্র গ্রহণ করে বিদেশ গেছেন। ২০১৪ সালে তাদের পাঠানো রেমিটেন্সের পরিমাণ ১৪ দশমিক ৯৩ বিলিয়ন মার্কিন ডলার।
সরকারি দলের সদস্য বেগম সানজিদা খানম’র অপর এক প্রশ্নের জবাবে মোশাররফ হোসেন বলেন, ১৯৯১ সালের মে থেকে চলতি বছর পর্যন্ত বিশ্বের বিভিন্ন দেশে ৩ লাখ ৯২ হাজার ৬৫৬ জন নারী কর্মী পাঠানো হয়েছে। ২০১৪ সালে বিদেশে ৭৬ হাজার ৬ জন নারী কর্মী পাঠানো হয়েছে, যা বিদেশে কর্মী গমনের ১৭ দশমিক ৮৫ শতাংশ। তিনি বলেন, বর্তমানে জর্ডান, হংকং, সংযুক্ত আরব আমিরাত, সৌদি আরবসহ বিশ্বের ৬৭টি দেশে নারী কর্মী পাঠানো হচ্ছে। চলতি বছরের মে পর্যন্ত বিশ্বের বিভিন্ন দেশে ৪০ হাজার ৩৮৭ জন নারী কর্মীর বিদেশে কর্মসংস্থান হয়েছে, যা মোট কর্মী গমনের ২০ দশমিক ৩৪ শতাংশ।
জাসদের সদস্য বেগম শিরীন আখতারের এক প্রশ্নের জবাবে প্রবাসী কল্যাণ ও বৈদেশিক কর্মসংস্থান মন্ত্রী বলেন, ২০১৪-২০১৫ অর্থবছরে বিদেশে গমনকারী কর্মীর সংখ্যা ৪ লাখ ২৮ হাজার ১২৬ জন। এর মধ্যে দক্ষ ৩২ শতাংশ, অদক্ষ ১৪ শতাংশ এবং স্বল্প দক্ষ ৫৪ শতাংশ।(ডেস্ক)