(দিনাজপুর২৪.কম) রাজধানী ঢাকার জলাবদ্ধতা নিরসনে বক্স কালভার্টগুলো উন্মুক্ত করার কথা বলেছেন প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা। মঙ্গলবার সচিবালয়ে মন্ত্রিসভার নিয়মিত সাপ্তাহিক বৈঠকে এক অনির্ধারিত আলোচনায় তিনি এ কথা বলেন। বিশ্বস্ত সূত্রে একথা জানাগেছে।

সম্প্রতি বৃষ্টির পানিতে ঢাকা ও চট্টগ্রাম শহরে জলাবদ্ধতার সৃষ্টি হয়। নগরবাসীর দুর্ভোগের কাহিনী গণমাধ্যমে প্রকাশিত হয়। এতে সরকার ব্যাপক সমালোচনার মুখে পড়ে। এ প্রেক্ষিতে এলজিআরডিমন্ত্রী ইঞ্জিনিয়ার খোন্দকার মোশাররফ হোসেন সাংবাদিকদের বলেন, প্রমিজ করছি, আগামী বছর এ রকম জলাবদ্ধতার সৃষ্টি হবে না।

প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা বলেন, ঢাকা শহরের বক্সকালভার্টগুলো উন্মুক্ত করে দিতে হবে। যাতে করে খালগুলোর ময়লা আবর্জনা পরিষ্কার করে দেয়া যায়। এতে দ্রুত পানি নেমে যাবে এবং জলাবদ্ধতা সৃষ্টি হবে না। আর কাল ভার্টগুলোর উপর দিয়ে এলিভেটেড এক্সপ্রেস ওয়ে তৈরি করে দেয়া যেতে পারে যাতে যানবাহন ও মানুুষজন চলাচল করতে পারে।

প্রসঙ্গত, ঢাকা শহরের পানি নিস্কাশনের খালগুলোর কিছুসংখ্যক খালে বক্সকালভার্ট নির্মাণ করা হয়েছে। যাতে পানি নিষ্কাশন হয় এবং উপর দিয়ে গাড়ি ও মানুষ চলাচল করেত পারে। এখন এগুলো উন্মুক্ত না থাকায় পরিষ্কার করতে সমস্যা হচ্ছে। ফলে ময়লা ও আবর্জনায় দ্রুত পানি নিষ্কাশন বাধাগ্রস্ত হচ্ছে।

এদিকে প্রধানমন্ত্রী বুড়িগঙ্গা ও ব্রহ্মপুত্র হেভি ড্রেজিং মেশিন দিয়ে খনন করারও নির্দেশনা দেন। এসময় মন্ত্রিপরিষদের এক সদস্য বলেন, বড় ড্রেজিং মেশিন আনতে হলে অনেক টাকার প্রয়োজন। জবাবে শেখ হাসিনা বলেন, টাকা লাগলেও তো মেশিন আনতে হবে। কারণ এতে দ্রুত খননকাজ সম্পন্ন করা যাবে। তিনি এই ড্রেজিং করা বালু বিক্রির ব্যবস্থা করার জন্যও সংশ্লিষ্ট মন্ত্রণালয়ের মন্ত্রীকে বলেন। -ডেস্ক