(দিনাজপুর২৪.কম) অবৈধ অ্যাকশনের কারণে আবারো বোলিংয়ে নিষেধাজ্ঞা পেলেন পাকিস্তানের মোহাম্মদ হাফিজ। ক্যারিয়ার জুড়ে বোলিং অ্যাকশন প্রশ্নবিদ্ধ হওয়াতে বেশ কয়েকবার শাস্তির মুখে পড়েছেন এই পাকিস্তানিকে অফস্পিনার। সর্বশেষ কাউন্টিতে প্রশ্নবিদ্ধ হয়েছে তার বোলিং অ্যাকশন। গত জুলাইয়ে ভাইটালিটি ব্লাস্টের মিডলসেক্সের হয়ে খেলতে নামেন হাফিজ। এবি ডি ভিলিয়ার্সের বদলি হিসেবে দলটিতে সুযোগ পান এই পাকিস্তানি। ৩০শে আগস্ট সমারসেটের বিপক্ষে একটি ম্যাচে তার বোলিং নিয়ে আপত্তি জানান আম্পায়াররা। পরে লাফবরো বিশ্ববিদ্যালয়ের ল্যাব টেস্টে তার অ্যাকশনে অসঙ্গতি দেখা যায়। বিশেষ করে তার অফব্রেকের সময় কনুই ১৫ ডিগ্রির বেশি ভাঙে।

অ্যাকশন বৈধ না হওয়াতে তাকে ইংল্যান্ডের সব ধরনের প্রতিযোগিতায় বোলিংয়ে নিষেধাজ্ঞা দিয়েছে ইংল্যান্ড অ্যান্ড ওয়েলস ক্রিকেট বোর্ড (ইসিবি)। আন্তর্জাতিক ক্রিকেটে ২০০৫ সালে প্রথমবারের মতো বোলিং অ্যাকশনের জন্য নিষিদ্ধ হন হাফিজ। এরপরও বেশ কয়েকবার বোলিংয়ে নিষিদ্ধ হয়েছেন তিনি। আবার অ্যাকশন শুধরে ফিরেও এসেছেন। সর্বশেষ নিষেধাজ্ঞা শেষে বোলিং শুরু করেন ২০১৮ সালের মে মাসে। তবে একই বছরের নভেম্বরে তার অ্যাকশন নিয়ে আবার প্রশ্ন ওঠে। যদিও সেবার আম্পায়ার নন, সন্দেহ তুলেছেন কিউই ব্যাটসম্যান রস টেইলর। -ডেস্ক