মোঃ আফজাল হোসেন, (দিনাজপুর২৪.কম) দিনাজপুরের ফুলবাড়ী থানা পুলিশ দুইদিনে চার নারী বিক্রেতা ও মাদকসেবীসহ ২১জনকে আটক করেছে। গত বুধবর ও গত মঙ্গলবার রাতে পৌর শহরের বিভিন্ন এলাকায় অভিযান চালিয়ে মাদক বিক্রিসহ মাদক সেবনকালে এদের আটক করা হয়েছে। আটককৃতদের মধ্যে দুই নারীসহ ১১জনের বিভিন্ন মেয়াদে সশ্রম কারাদন্ড দিয়েছেন ভ্রাম্যমান আদালতের নির্বাহী ম্যাজিষ্টেট ও উপজেলা নির্বাহ কর্মকর্তা মো. মনিরুজ্জামান। গত বুধবার (২৪জুন) রাতে আটককৃত ১০জন হচ্ছে, উপজেলার পৌর এলাকার তেঁতুলিয়া গ্রামের নজরুল ইসলামের ছেলে হালিম মিয়া (৩২), দক্ষিণ তেঁতুলিয়া গ্রামের মৃত রফিকুল ইসলামের ছেলে মাজেদুল ইসলাম (৪০), উত্তর সুজাপুর গ্রামের শেখ মোস্তাকিনের ছেলে আব্দুর রহিম (২৮),একই গ্রামের আবু তালেবের ছেলে লাবু মিয়া (২৭), কাঁটাবাড়ি নয়াপাড়া গ্রামের জামিল হোসেনের স্ত্রী মোছা. হাফিজা বেগম (২৬), পার্বতীপুরের পাতরাপাড়া গ্রামের মৃত আমিনুল ইসলামের মেয়ে মোছা. শাহানাজ পারভিন (২৭), একই গ্রামের আজাহার আলীর ছেলে রায়েজিদ (৩১), পার্বতীপুরের রসুলপুর গ্রামের মৃত মফিজ উদ্দিনের ছেলে আবুজার রহমান (৩০), নবাবগঞ্জের আফতাবগঞ্জ গ্রামের আব্দুর রাজ্জাকের ছেলে রাসেল (৩৫) ও নারায়ণগঞ্জের সিদ্ধিরগঞ্জ উপজেলার মৃত রওশন রাজ মন্ডলের ছেলে সিমুল মন্ডল (৩০)। একইভাবে গত মঙ্গলবার ((২৩জুন) রাতে আটককৃত ১১জন হচ্ছে,  উপজেলার পৌর এলাকার গৌরীপাড়া গ্রামের মৃত আব্দুল গোফ্ফারের ছেলে ইদ্রিস আলী ইদু (৪৫), মৃত মাদারের মেয়ে মোছা, রওশন আরা (৪৪), মৃত আব্দুল গোফ্ফারের ছেলে মোমিন মিয়া (৩০), মৃত আফজাল হোসেনের ছেলে লোকমান আলী (৫০), পশ্চিম গৌরীপাড়া গ্রামের মৃত মিন্টু মিয়ার ছেলে রকি মিয়া (২১), স্তাব নগর স্টেশনপাড়ার মৃত মুন্না মিয়ার স্ত্রী মোছা. শাফিয়া বেগম (৪০), স্টেশনপাড়ার মৃত আবদুর শেখের ছেলে মো. শুকুর আলী (৪০), তেঁতুলিয়া গ্রামের মৃত নাসির উদ্দিনের ছেলে সাইদুর রহমান (৪২), উপজেলার রাঙ্গামাটি গ্রামের তফসের আলীর ছেলে রাশেদুল ইসলাম (২৫), নবাবগঞ্জের ভাগলপুর গ্রামের মৃত আমিনুল ইসলামের ছেলে রাহেনুল ইসলাম (২৮) ও দুর্গাপুর গ্রামের রমজান আলীর ছেলে মো. মিন্টু (২৬)। থানার অফিসার ইনচার্জ-ওসি (তদন্ত) মো. গোলাম মোস্তফা বলেন, তার নেতৃত্বে থানার পুলিশ সদস্যরা গত বুধবার (২৪জুন) ও গত মঙ্গলবার ((২৩জুন) রাত ১০টার পর থেকে উপজেলার পৌর শহরের বিভিন্ন এলাকায় মাদক বিরোধী অভিযান চালিয়ে মাদক বিক্রিসহ মাদকসেবনকালে উল্লেখিত চার নারী মাদক বিক্রেতা ও মাদকসেবীসহ ২১জনকে আটক করা হয়। তবে গত মঙ্গলবার রাতে আটক ১১জনের মধ্যে মাদক বিক্রেতা শাফিয়া বেগমকে ৬মাস, মাদক সেবনকারি রাশেদুল ইসলামকে ১৫দিন এবং অন্য ৯জনকে ১মাস করে সশ্রম করাদন্ড দিয়ে কারাগারে পাঠিয়েছেন ভ্রাম্যমান আদালতের নির্বাহী ম্যাজিষ্ট্রেট মো. মনিরুজ্জামান। তবে ভ্রাম্যমান আদালতের নির্বাহী ম্যাজিষ্টেট না থাকায় এখনও গত বুধবার রাতে আটক ১০জনকে ভ্রাম্যমান আদালতে সোপদ করা যায়নি।