ছবি : সংগৃহীত

(দিনাজপুর২৪.কম) ভারতের প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদির আগমন কেন্দ্র করে শুক্রবার জুমার নামাজের পর রাজধানীর বায়তুল মোকাররম মসজিদ এলাকায় বিক্ষোভকারীদের সঙ্গে ক্ষমতাসীন দলের নেতাকর্মী ও পুলিশের দফায় দফায় সংঘর্ষ হয়। এ ঘটনায় পল্টন থানাপুলিশ বাদী হয়ে ৫০০ জনকে আসামি করে মামলা করেছে। তবে মামলায় কাদের আসামি করা হয়েছে এ বিষয়ে বিস্তারিত জানায়নি পুলিশ।

পল্টন থানার অফিসার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) আবু বকর সিদ্দিক জানান, এ ঘটনায় এখন পর্যন্ত কাউকে আটক করা হয়নি। গত শুক্রবার দুপুরে জুমার নামাজের পর মোনাজাত শেষে মুসল্লিদের একাংশ মোদিবিরোধী বিক্ষোভ শুরু করে। স্লোগান দেওয়ার

খানিক পরই ক্ষমতাসীন দলের অঙ্গসংগঠনের নেতাকর্মীরা মসজিদের উত্তর পাশের ফটকে মিছিলকারীদের ওপর লাঠিসোটা নিয়ে হামলা চালান। এ সময় তারা মিছিলকারীদের মারধর করেন। এতে বিক্ষোভকারীরা পিছু হটে মসজিদের ভেতরে ঢুকে পড়েন। এর খানিক পরই বিক্ষোভকারীরা আবার সংগঠিত হয়ে ক্ষমতাসীন দলের নেতাকর্মীদের ওপর পাল্টা হামলা চালান। একপর্যায়ে পরিস্থিতি নিয়ন্ত্রণে নিতে পুলিশ মসজিদের দিকে কাঁদানে গ্যাসের শেল নিক্ষেপ করে। ফাঁকা গুলিও ছোড়ে। এতে অনন্ত ৬০ জন আহত হন।

ওই ঘটনার জেরে চট্টগ্রামে সংঘর্ষে চারজন নিহত হয়। এসব ঘটনার পরিপ্রেক্ষিতে পরদিন সারাদেশে বিক্ষোভ এবং রবিবার দেশব্যাপী হরতালের ঘোষণা দেয় হেফাজতে ইসলাম। -ডেস্ক