(দিনাজপুর২৪.কম) ১৩ হাজার ৩০০ লোকের উপস্থিতিতে প্রতীকী পরিচ্ছন্নতার মাধ্যমে রেকর্ড গড়েছে ঢাকা দক্ষিণ সিটি কর্পোরেশন (ডিএসসিসি)। বাংলা বছরের শেষ দিন আজ শুক্রবার সকালে নগরভবন থেকে গুলিস্তান জিরো পয়েন্ট পর্যন্ত সচেতনতামূলক শোভাযাত্রার মাধ্যমে এ রেকর্ড গড়ে তারা।

সকাল ১০টা ৩৫ মিনিটে জাতীয় সংগীতের মধ্য দিয়ে কর্মসূচির আনুষ্ঠানিক কার্যক্রম শুরু হয়।

জানা যায়, পরিচ্ছন্নতায় বিশ্বরেকর্ড গড়তে চৈত্রসংক্রান্তির দিনে বিশেষ এ কর্মসূচি পালন করেছে ঢাকা দক্ষিণ সিটি কর্পোরেশন (ডিএসসিসি)। ডেটলের পৃষ্ঠপোষকতায় ‘ডেটল পরিচ্ছন্ন ঢাকা, সাপোর্টেড বাই ডিএমপি অ্যান্ড পাওয়ার্ড বাই জিটিভি’ শীর্ষক এই প্রতীকী পরিচ্ছন্ন কর্মসূচির আয়োজন করা হয়। ঢাকা শহরের বিভিন্ন শ্রেণি-পেশার মানুষ প্রতীকী এ কর্মসূচিতে অংশ নিয়ে সুশৃঙ্খল ও সারিবদ্ধভাবে দাঁড়িয়ে সিটি কর্পোরেশনের দেয়া ঝাড়ু ও কার্ড সংগ্রহ করেন। পরে ১৩ হাজার ৩০০ লোকের উপস্থিতিতে নগরভবন থেকে গুলিস্তান জিরো পয়েন্ট পর্যন্ত সচেতনতামূলক শোভাযাত্রা বের করা হয়।

এসময় অন্যদের মধ্যে উপস্থিত ছিলেন- ঢাকা মহানগর পুলিশ কমিশনার (ডিএমপি) আছাদুজ্জামান মিয়া, প্রধান নির্বাচন কমিশনার (সিইসি) কে এম নুরুল হুদা, ডিএসসিসি মেয়র মোহাম্মদ সাঈদ খোকনসহ নগরীর সকল শ্রেণী পেশার মানুষ।

ডিএসসিসি কর্তৃপক্ষ জানিয়েছে, স্বচ্ছ ঢাকা গড়তে নগরবাসীকে সচেতন করতে প্রতীকী এই কর্মসূচির আয়োজন হয়। এর মাধ্যমে পুরো নগরী পরিচ্ছন্ন না হলেও জনগণের মধ্যে সচেতনতা বৃদ্ধি পাবে। পাশাপাশি এই শহরের নাম গিনেস ওয়ার্ল্ড বুকে লেখা থাকবে। ডিএসসিসি ও রেকিট বেনকিজার বাংলাদেশের যৌথ উদ্যোগে ‘ডেটল পরিচ্ছন্ন ঢাকা’ নামে এ প্রচার অভিযান কর্মসূচি অনুষ্ঠিত হয়। এছাড়াও সহায়তা দেবে ঢাকা মেট্রোপলিটন পুলিশ (ডিএমপি)।

এই পরিষ্কার-পরিচ্ছন্নতা কর্মসূচিতে সর্বাধিক মানুষের অংশগ্রহণের মাধ্যমে গিনেস বুক অব ওয়ার্ল্ড রেকর্ডে বাংলাদেশ স্থান করে নেবে বলে আশাবাদী ঢাকা দক্ষিণ সিটি কর্পোরেশনের মেয়র সাঈদ খোকন। -ডেস্ক