সুকুমার দাস (বাবু) পঞ্চগড় (দিনাজপুর২৪.কম) পঞ্চগড়ে আটোয়ারী উপজেলার তোড়িয়া ইউনিয়নের কাজীপাড়া গ্রামের মোঃ ইউসুফ আলীর মেয়ে মোছাঃ আমিনা আক্তার(২৬) যৌতুক নিরোধ আইনের ৪ধারায় সেনাবাহিনীতে কর্মরত মোঃ মনিরুজ্জামান মনির বাবু(৩১) জিওসি রানার সৈনিক নং ১২২৯৩৫০ রাজেন্দ্রপুর বিপসট এর বিরুদ্ধে আদালতে মামলা দায়ের করেন। যাহার মামলা নং সি,আর ১৯৩/১৮। বাদীনি মোছাঃ আমিনা আক্তার জানায় মোঃ মনিরুজ্জামান মনির বাবু সাং- নিয়ামতপুর, থানা- বালিয়াডাঙ্গী, জেলা- ঠাকুরগাঁও এর সহিত শরিয়ত মতে চার লক্ষ বিশ হাজার নয় শত নিরানব্বই টাকা দেনমহরানা ধার্যে রেজি: কাবিননামা মূল্যে বিবাহ হয়। বাদীনি এক পুত্র সন্তানের জননী। আসামী মনিরুজ্জামান মনির বাবু আত্মিয় স্বজনদের কু-পরামর্শে ও উসকানীতে প্রায় সময় পুনরায় আমিনা আক্তারকে আরো ৫লক্ষ টাকা যৌতুকের জন্য শারিরীক ও মানসিক ভাবে নির্যাতন করত। ৫লক্ষ টাকা যৌতুকের জন্য আমিনা আক্তারকে কোলের সন্তানটিকে সহ গত ১৪/০৮/২০১৭ইং তারিখে এক কাপড়ে বাড়িতে থেকে বেড় করে দেয়। এই নিয়ে শালি বৈঠক হয়। কিন্তু তারা বলে যে, ৫লক্ষ টাকা না দিলে আমিনা আক্তারকে আর স্ত্রীর মর্যাদা দেওয়া হবে না। প্রয়োজনে মনিরুজ্জামান মনির বাবুকে অন্যত্র বিবাহ দিয়ে প্রচুর টাকা যৌতুক নিতে পারব, ছেলে আমাদের সেনা বাহিনীতে চাকুরী করে, আমাদেরকে ঠেকাবে কে। অকথ্য ভাষায় কথা বলে বৈঠক শালি দরবার থেকে চলে যায়। মোছাঃ আমিনা আক্তারের আত্মীয় স্বজন ভবিষ্যতের কথা চিন্তা ভাবনা করে তার স্বামী ও শ্বশুরবাড়ির আত্মীয় স্বজনদেরকে অনেকবার নিয়ে যাওয়ার জন্য যোগাযোগ করে। কিন্তু তারা ৫লক্ষ টাকা যৌতুক ছাড়া আমিনা আক্তারকে নিয়ে যেতে অস্বীকার করে। বর্তমানে ০৩ বছরের পুত্র সন্তানটিকে নিয়ে যৌতুকের অভিসাপে অভিসপ্ত হয়ে গরীব বাবার বাড়িতে অদ্যহারে অনাহারে দিনযাপন করছে। আমিনা আক্তার নিরুপায় হয়ে বিজ্ঞ আদালতে ১। মনিরুজ্জামান মনির বাবু, পিতা- মোঃ নাজিম উদ্দীন, ২। মোঃ মোফাজুল ইসলাম, ৩। মোঃ মেহেদী হাসান সর্ব পিতা- মোঃ নাজিম উদ্দীন, ৪। মোছাঃ লাইলুন আক্তার, স্বামী- নাজিম উদ্দীন, ৫। মোঃ নাজিম উদ্দীন, পিতা- মৃত: ফজলুর রহমান, সর্ব সাং- নিয়ামতপুর, থানা- বালিয়াডাঙ্গী, ৬। মোঃ বকুল, পিতা- রফিজ উদ্দীন, সাং- পাঁচঘড়িয়া, থানা- হরিপুর, সর্ব জেলা- ঠাকুরগাঁও, ৬জনকে আসামী করে মামলা আনয়ন করতে বাধ্য হয়। পরে আসামীগন বিজ্ঞ আদালতে বিচারকের কাছে আপোষ মিমাংশা চেয়ে জামিনে বের হয়। কিন্তু অদ্য ০৬/০৬/২০১৮ইং তারিখে আপোষ মিমাংশা ছাড়া ধার্যদিনে হাজিরা দিতে আসে এবং জামিনের শর্ত ভঙ্গ করেন। বিচারক ঈ/ড মুল্যে আসামীকে জেল হাজতে প্রেরণ করেন। মামলাটি বর্তমানে বিজ্ঞা আলমী আদালত-৫, আটোয়ারী, পঞ্চগড় জনাব মোঃ মাছুদুর রহমান সিনিয়র জুডিসিয়াল ম্যাজিষ্ট্রেট পঞ্চগড় অধিনে চলমান রয়েছে। আমিনা আক্তার বলেন আমার মত কোন নারী যেন এই যন্ত্রনার স্বীকার না হয়। তিনি এ নরপশুর ন্যায্য বিচার চেয়ে উর্দ্ধতন কর্তৃপক্ষের কাছে জোর দাবী জানান।