সুকুমার দাস বাবু (দিনাজপুর২৪.কম) পঞ্চগড় সদর উপজেলার ধাক্কামারা ইউনিয়নে জমা-জমি নিয়ে মারপিট, ভাংচুর, লুটপাট ঘটনায় আদালতে মামলা দায়ের করলে বিজ্ঞ বিচারক তদন্তের জন্য সদর থানায় প্রেরণ করে, দীর্ঘ তদন্ত শেষে তদন্তকারী কর্মকর্তা বিজ্ঞ আদালতে তদন্ত প্রতিবেদন প্রেরণ করে। যাহার নং- জি.আর ৩৮৭/১৬ আদালত সূত্রে জানা যায় মামলাটি দীর্ঘদিন পরিচালিত হয়ে গত ৪ জুন আমলী আদালত-১ ভারপ্রাপ্ত চীফ জুডিশিয়াল ম্যাজিস্ট্রেট জাহাঙ্গীর আলম, তদন্ত কর্মকর্তার দেওয়া চার্জসীট পর্যালোচনা করে অভিযুক্ত ০৫ জন আসামীর মধ্যে ৪ জন আসামীকে জামিন মঞ্জুর করেন এবং অপর এক আসামী রাসেদুজ্জামান রাসেল(২৮), কে কারাগারে প্রেরণের নির্দেশ দেন। মামলার বাদী আক্তারুজ্জামান বিপুল জানায় রাসেদুজ্জামান রাসেল পঞ্চগড় বি.এ.ডি.সি বীজ বিপনন কার্যালয় এর ব্যাক্তিগত সহকারী কর্মকর্তা এবং যতনপুকুরী এলাকার মো: খাদেমুল এর পুত্র। বাদী পক্ষের আইনজীবি এ্যাডভোকেট কামরুজ্জামান রাসেদ জানান সোমবার পুলিশের দেওয়া চার্জসীট পর্যালোচনা শেষে রাসেদুজ্জামান রাসেল কে জেল হাজতে প্রেরণ করে। সিনিয়র সহকারী পরিচালক, বি.এ.ডি.সি বীজ বিপনন কার্যালয় পঞ্চগড়, আব্দুল হাই জানান সোমবার সকালে (০৪ জুন) ৫ দিনের নৈমিত্তিক ছুটির আবেদন করেছেন রাসেদুজ্জামান রাসেল, এখন জানতে পারলাম সে আদালতে হাজিরা দিতে গিয়ে আটক হয়েছে।