(দিনাজপুর২৪.কম) পাখির কলরবে মুখরিত ছায়াঘেরা বিশাল এক দিঘির নাম নীলসাগর। নীলসাগরের এই প্রাকৃতিক সৌন্দর্য উপভোগ করতে এখানে দেশের বিভিন্ন প্রান্ত থেকে ছুটে আসেন পর্যটকেরা। এসব পর্যটককে আরও আনন্দ দিতে এখানে নির্মাণ করা হচ্ছে নীলসাগর ইকোপার্ক।গত শুক্রবার দুপুরে জেলার একমাত্র বিনোদনকেন্দ্র নীলসাগর চত্বরে ফলক উন্মোচন করে ওই পার্কের উদ্বোধন করেন রংপুর বিভাগীয় কমিশনার মোহাম্মদ জয়নুল বারী। নীলফামারী জেলা সদর থেকে মাত্র ১২ কিলোমিটার দূরে এই পার্ক। এটি জেলা সদরের গোরগ্রাম ইউনিয়নে।জেলা প্রশাসনের উদ্যোগে আয়োজিত ওই উদ্বোধনী অনুষ্ঠানে উপস্থিত ছিলেন জেলা প্রশাসক নাজিয়া শিরিন, নীলফামারী পৌর মেয়র দেওয়ান কামাল আহমেদ, স্থানীয় সরকার বিভাগের উপপরিচালক আবদুল মোত্তালেব সরকার, অতিরিক্ত জেলা প্রশাসক (রাজস্ব) মো. শাহীনুর আলম, অতিরিক্ত জেলা প্রশাসক (সার্বিক) মো. আজাহারুল ইসলাম, অতিরিক্ত জেলা ম্যাজিস্ট্রেট খন্দকার মো. নাহিদ হাসান প্রমুখ। পরে অতিথিরা সেখানে বিভিন্ন প্রজাতির গাছের চারা রোপণ করেন।জেলা প্রশাসকের কার্যালয় সূত্রে জানা গেছে, ওই ইকোপার্কে থাকবে পশুপাখি, মাছ, গাছপালা, মিনি চিড়িয়াখানা এবং শিশুদের বিনোদনের জন্য নানা ধরনের রাইডস থাকছে। নীলসাগরে মোট জমির পরিমাণ ৫৩ দশমিক ৯০ একর। এর মধ্যে দিঘির আয়তন ২০ দশমিক ৭০ একর। বাকি জমিতে রয়েছে বিভিন্ন প্রজাতির ফল, ফুল, বনজ ও ঔষধি গাছ।জেলা প্রশাসক নাজিয়া শিরিন বলেন, ‘আমরা পর্যটন ও নারীশিক্ষাকে গুরুত্ব দিয়ে কাজ করছি। এখানে পর্যটনশিল্পের উন্নয়নে জেলার একমাত্র পর্যটনকেন্দ্র নীলসাগরে প্রাকৃতিক সৌন্দর্য বৃদ্ধি করে পরিবেশবান্ধব কিছু রাইডস ইতিমধ্যে নির্মাণ করা হয়েছে। কিছু রাইডসের কাজ চলমান রয়েছে। এখানে একটি মিনি চিড়িয়াখানা করারও পরিকল্পনা আছে।’প্রধান অতিথি রংপুর বিভাগীয় কমিশনার মোহাম্মদ জয়নুল বারী বলেন, ‘মানুষ এখন একটু বিনোদনের জন্য দেশের বিভিন্ন প্রান্তে বেড়াতে যাচ্ছেন। ইতিমধ্যে আমরা নীলসাগরের উন্নয়নকাজ শুরু করেছি। এই ইকোপার্কের মাধ্যমে প্রাকৃতিক পরিবেশে দর্শনার্থীদের আরও বিনোদন দেওয়ার ব্যবস্থা করছি।-ডেস্ক