(দিনাজপুর২৪.কম) মাদারীপুরের মস্তফাপুরে আওয়ামী লীগের দুই পক্ষের সংঘর্ষে ৫ জন গুলিবিদ্ধসহ কমপক্ষে ৩০ জন গুরুত আহত হয়েছেন। শুক্রবার দুপুরে এ ঘটনা ঘটে। এসময় প্রায় ৩০ টি বাড়ি ঘর ভাংচুর করা হয়। এতে কমপক্ষে ১ কোটি টাকার ক্ষয়ক্ষতি হয়েছে বলে দাবী ক্ষতিগ্রস্তদের।

মাদারীপুর মডেল থানা পুলিশ ও হাসপাতাল সূত্রে জানা গেছে, গত ৩১ মার্চ দ্বিতীয় ধাপে ইউপি নির্বাচনে সদর উপজেলার মস্তফাপুর ইউনিয়নের আওয়ামী লীগের দলীয় প্রার্থী কুদ্দুস মল্লিকের কাছে পরাজিত হন আওয়ামী লীগের বিদ্রোহী প্রার্থী সোহরাব হোসেন খান।

কিন্তু এই নির্বাচনে বিদ্রোহী প্রার্থী সোহরাব খান আওয়ামী লীগের প্রার্থী কুদ্দুস মল্লিকের বিরুদ্ধে জাল ভোট দিয়ে জয়ী হওয়ার অভিযোগ এনে নির্বাচনের দিন বিকেল থেকেই কোন্দলে জড়িয়ে পরে।

সেই কোন্দলের জের ধরেই শুক্রবার দুপুরে দুই পক্ষের সমর্থকদের মধ্যে সংঘর্ষ হয়। এতে ৫ জন গুলিবিদ্ধসহ কমপক্ষে ৩০ জন আহত হয়েছে এবং ১০ টি বাড়ি ঘর ভাংচুর করা হয়েছে।

এ ব্যাপারে মাদারীপুর সদর হাসপাতালের কর্তব্যরত চিকিৎসক আবু সফার বলেন,‘বাদল মীর (৩০), শাহ আলম (২৮), আরিফ হাওলাদার (৩০), শওকত হাওলাদার (৩২) এবং সাইফুল ইসলাম (৩১) গুলিবিদ্ধ হলে তাদেরকে ফরিদপুর ও ঢাকা মেডিকেল কলেজ ও হাসপাতালে পাঠানো হয়েছে।

মডেল থানার ওসি জিয়াউল মোর্শেদ বলেন,‘পরিস্থিতি সম্পূর্ণ পুলিশের নিয়ন্ত্রণে আছে। পরিস্থিতি স্বাভাবিক রাখতে এলাকায় অতিরিক্ত পুলিশ মোতায়েন করা হয়েছে।’ -ডে্স্ক