(দিনাজপুর২৪.কম) রাজধানীর বিমানবন্দর সড়কে বাসচাপায় দুই কলেজশিক্ষার্থী নিহতের ঘটনায় জাবালে নূর পরিবহনের রুট পারমিট বাতিল করেছে বাংলাদেশ সড়ক পরিবহন কর্তৃপক্ষ (বিআরটিএ)। বুধবার (০১ আগস্ট) সকাল ১১টার দিকে রাজধানীর মানিক মিয়া অ্যাভিনিউয়ে ফিটনেসবিহীন গাড়ির বিরুদ্ধে অভিযান পরিচালনার সময় জাবালে নূর পরিবহনের বাসের রুট পারমিট বাতিলের ঘোষণা দেন বিআরটিএ’র চেয়ারম্যান মশিউর রহমান। অভিযানে ফিটনেসবিহীন বেশকিছু গাড়িকে ১ লাখ ২০ হাজার টাকা জরিমানা, ১৮ জন চালককে বিভিন্ন মেয়াদে কারাদণ্ড ও ৭টি মামলা দেওয়া হয়।

গত রোববার (২৯ জুলাই) তিন বাসের পাল্লাপাল্লিতে কুর্মিটোলায় জাবালে নূর পরিবহনের একটি বাসের চাপায় শহীদ রমিজ উদ্দিন কলেজের দুই শিক্ষার্থী নিহত হয়। এ ঘটনায় আহত হয় আরো বেশ কয়েকজন শিক্ষার্থী। দুই শিক্ষার্থী মৃত্যুর ঘটনার প্রতিবাদের বুধবারও রাজধানীর বিভিন্ন সড়ক অবরোধ করে বিক্ষোভ করছে শিক্ষার্থীরা। বিক্ষুব্ধ শিক্ষার্থীরা ৯ দফা দাবি ঘোষণা করে। এই দাবি আদায়ে সাতদিনের আলটিমেটামও দেয় তারা।

শিক্ষার্থীদের নয় দফা দাবি হল:
১. বেপোরোয়া চালককে ফাঁসি দিতে হবে এবং এই শাস্তি সংবিধানে সংযোজন করতে হবে।
২. নৌপরিবহনমন্ত্রীর বক্তব্য প্রত্যাহার করে শিক্ষার্থীদের কাছে নিঃশর্ত ক্ষমা চাইতে হবে।
৩. শিক্ষার্থীদের চলাচলে এমইএস ফুটওভার ব্রিজ বা বিকল্প নিরাপদ ব্যবস্থা নিতে হবে।
৪. প্রত্যেক সড়কের দুর্ঘটনাপ্রবণ এলাকায় স্পিড ব্রেকার দিতে হবে।
৫. সড়ক দুর্ঘটনায় নিহত ছাত্র-ছাত্রীদের দায়ভার সরকারকে নিতে হবে।
৬. শিক্ষার্থীরা বাস থামানোর সিগন্যাল দিলে থামিয়ে তাদের বাসে তুলতে হবে।
৭. শুধু ঢাকা নয়, সারাদেশে শিক্ষার্থীদের জন্য হাফ ভাড়ার ব্যবস্থা করতে হবে।
৮. রাস্তায় ফিটনেসবিহীন গাড়ি চলাচল এবং লাইসেন্স ছাড়া চালকদের গাড়ি চালনা বন্ধ করতে হবে।
৯. বাসে অতিরিক্ত যাত্রী নেওয়া যাবে না। -ডেস্ক