সাহেব (দিনাজপুর২৪.কম) ৪র্থ দিনেও পবিত্র ঈদ উল ফিতরের ঈদ আনন্দ ও উচ্ছাস যেন থামছে না। নতুন প্রজন্মের ছেলে মেয়েরা ঈদ চলে গেছে এ কথাটি মানতে রাজি নয়। দিনাজপুরের বিনোদন স্পট গুলি এখনো আনন্দে হাসছে। বিকেল থেকে সন্ধা পর্যন্ত মানুষের ঢলে ঐতিহাসিক দিনাজপুর গোর এ শহীদ বড় ময়দানে সর্ববৃহৎ ঈদগাহ মিনার ও মনতা ডেকোরেটরের অস্থায়ী শিশু পার্ক প্রকম্পিত হয়ে উঠেছে। ৩২ একরের এই বিশাল মাঠটি যেন মানুষের ভারে ক্লান্ত হয়ে পড়েছে। ঈদের আনন্দ ও উচ্ছাস নিতে শিশুরা শিশু পার্কে ঘুর পার্ক খাচ্ছে। দোলনা, চরকি, ট্রেন, নৌকা, ঘোড়া গাড়িসহ শত খেলনার আদলে শিশুরা মায়ের কোল থেকে ছুটে যাচ্ছে শিশু পার্কে। এই অস্থায়ী শিশু পার্ক যে কোন দিন চলে যেতে পারে। তাই প্রতিটি খেলনা আনন্দ উপভোগ করতে শিশুরা ভুল করছে না। এদিকে ঐতিহাসিক এই বড় মাঠে নতুন প্রজন্মের তরুন তরুনীরা নিজেদের ভালবাসা ভাগ করে নিতে ঈদগাহ মাঠে ভীড় জমাচ্ছে। সন্ধা গড়িয়ে আসছে তবুও বাড়ীতে ফেরার কোন চিন্তা নাই। তবুও যেতে হবে। তাই বাধ্য হয়ে ফিরে যেতে হচ্ছে বাড়ীতে। সর্ববৃহৎ ঈদগাহ মিনারের শতশত লাইটের আলোর ঝলকে মাঠকে আলোকিত করে তুলেছে। ধানের দেশ দিনাজপুর। কৃষকরা এবার ধানের ন্যায্য মুল্য পেয়েছে। ঈদ সবার জন্য আনন্দের বার্তা নিয়ে এসেছে। অভাব দিনাজপুরের মানুষকে ছুতে পারেনি। তাই ঈদ আনন্দ ৪র্থ দিনেও থামছে না।