মাহবুবুল হক খান (দিনাজপুর২৪.কম) দিনাজপুরে গত ২৪ ঘন্টায় নতুন করে আরো ২ জন করোনাভাইরাসে (কোভিড ১৯) আক্রান্ত হয়েছে। এই নিয়ে দিনাজপুর জেলায় করোনায় আক্রান্তের সংখ্যা বেড়ে ১৩ জন হয়েছে। এদের মধ্যে একজন সদর উপেজেলা ও একজন কাহারোল উজেলার বাসিন্দা।
দিনাজপুরের সিভিল সার্জন ডা. মো. আব্দুল কুদ্দুস মঙ্গলবার (২১ এপ্রিল) সন্ধ্যা ৬টায় করোনাভাইরাসে নতুন করে ২ জন আক্রান্তের খবরটি নিশ্চিত করেন। নতুন আক্রান্ত ২ জনের মধ্যে একজন আমানুল ইসলাম (২৮) সদর উপজেলার আউলিয়াপুর গ্রামের বাসিন্দা ও অন্যজন সাজ্জাদ হোসেন (২২) কাহারোল উপজেলার মুহাম্মদপুর গ্রামের বাসিন্দা।
দিনাজপুরে এর আগে গত মঙ্গলবার প্রথম ৭ জন, বুধবার একজন, বৃহস্পতিবার একজন, শুক্রবার একজন ও রবিবার আরো একজন করোনা আক্রান্ত রোগি শনাক্ত হয়। এ নিয়ে জেলার ১৩টি উজেলার মধ্যে ৭টি উপজেলায় ১৩ জন করোনা রোগি শনাক্ত হলো। এর মধ্যে ১০ জন পুরুষ, দুইজন মহিলা ও একজন শিশু। আক্রান্তদের মধ্যে সদর উপজেলায় নতুন এক শিশুসহ ৫ জন, নবাবগঞ্জে ৩ জন, ফুলবাড়ীতে একজন, পার্বতীপুরে একজন, বোচাগঞ্জে একজন, ঘোড়াঘাটে একজন ও কাহারোল উপজেলায় একজন।
সিভিল সার্জন ডা. মো. আব্দুল কুদ্দুস জানান, করোনাভাইরাসে আক্রান্ত ব্যক্তিরা সবাই আগে থেকেই হোম কোয়ারেন্টাইনে ছিল। বর্তমানে তাদেরকে হোম আইসোলেশনে আলাদা করে রাখা হয়েছে। আমরা নিয়মিত তাদের সাথে যোগাযোগ রক্ষা করছি। প্রয়োজনীয় ব্যবস্থাপত্র ও প্রটোকল রক্ষা করা হচ্ছে। প্রশাসনের পক্ষ থেকেও তাদের সাথে নিয়মিত যোগাযোগ করা হচ্ছে।
উল্লেখ্য, দিনাজপুর জেলায় করোনায় আক্রান্ত ১৩ জনের মধ্যে সদর উপজেলার আক্রান্ত ৫ জন হলেন শহরের সুইহারী সরকারি কলেজের মোড় আদিবাসী কালচারাল সেন্টারের এলাকার বাসিন্দা স্বামী স্ত্রী ও তাদের দেড় বছরের শিশুসন্তান, একজন নয়নপুর গ্রামের ও একজন আউলিয়াপুর গ্রামের বাসিন্দা।
নবাবগঞ্জ উপজেলার ৩ জন, ফুলবাড়ী উপজেলার একজন খয়েবাড়ি মধ্যমপাড়া গ্রামের বাসিন্দা, পার্বতীপুরের একজন পার্বতীপুর পৌরসভার নামাপাড়া এলাকার বাসিন্দা নারায়নগঞ্জ ফেরত, বোচাগঞ্জে আক্রান্ত একজন মহিলা ছাতইল ইউনিয়নের যশেরর গ্রামের বাসিন্দা, ঘোড়াঘাট উজেলার কৃষ্ণপুর গ্রামের বাসিন্দা ৩৮ বছর বয়সী একজন পুরুষ ও একজন কাহারোল উপজেলার মুহাম্মদপুর গ্রামের বাসিন্দা।