(দিনাজপুর২৪.কম) ঢাকায় বাসচাপায় দুই কলেজশিক্ষার্থী নিহত হওয়ার ঘটনায় বিচার চেয়ে আজ বুধবারও রাজপথে নেমেছে শিক্ষার্থীরা। বুধবার (১ আগস্ট) সকাল ১০টা থেকেই রাজধানীর বিভিন্ন সড়ক অবরোধ করেছে তারা। গতকালের মত আজও ঢাকার রাস্তায় বাস নেই বললেই চলে!

সকাল ১০টার দিকে উত্তরার হাউজবিল্ডিং সড়ক অবরোধ করে বিক্ষোভ শুরু করেছে শিক্ষার্থীরা। এতে ঢাকা-ময়মনসিংহ সড়কে যান চলাচল বন্ধ হয়ে যায়। ফার্মগেট এলাকায় সরকারি বিজ্ঞান কলেজের শিক্ষার্থীরা রাজপথে অবস্থান নিয়েছে।

মোহাম্মদপুরে শিক্ষার্থীরাও সকালে মিছিল বের করেছে। সকাল ৭টার দিকে কাঁচপুর সড়কেও মিছিল-অবরোধ করেছে শিক্ষার্থীরা। এসময় তারা বেশ কয়েকটি বাসও ভাঙচুর করে।

এদিকে, যেসব সড়কে শিক্ষার্থীদের অবরোধ নেই সেসব জায়গাতেও গণপরিবহনের সংখ্যা খুব কম। এজন্য পরিবহন মালিকদের দায়ী করছেন যাত্রীরা। তারা বলছেন, বাস মালিকের ইচ্ছে করেই পথে পরিবহন নামাচ্ছে না। বাস মালিকেরাও বলছেন, ভাঙচুরের ভয়েই তারা রাস্তায় গাড়ি নামননি।

আকিব পরিবহনের একজন পরিচালক হাওলাদার মোহাম্মদ মহসীন জানান, আনুষ্ঠানিক কোনো সিদ্ধান্ত নেই, ক্ষতির ভয়েই পথে বাস নামানো হচ্ছে না। রোববার তার কোম্পানির ছয়টি বাসও ভাঙচুর করা হয়, এরপর থেকেই বাস পথে নামানো কম হচ্ছে।

এ পরিস্থিতিতে তারা গাড়ি ভাঙচুর না করার আশ্বাস অথবা শিক্ষার্থীরা আন্দোলন স্থগিত করা হলে বাস পথে ফের নামানো হবে বলে জানান।

ঢাকা-নারায়ণগঞ্জগামী কোনো পরিবহন ওই রুটে চলাচল করছে না। ফলে চরম বিড়ম্ববনায় পড়তে হয়েছে রায়েরবাগ, শনির আখড়া, যাত্রাবাড়ী, দনিয়া, সায়েদাবাদসহ আশপাশের হাজার হাজার মানুষ।

বাস না থাকায় ভোগান্তি হলেও শিক্ষার্থীদের আন্দোলনকে যৌক্তিক বলে উল্লেখ করে মজিদ আহমেদ নামে অগ্রণী ব্যাংকের এক কর্মকর্তা।

তিনি বলেন, ‘কষ্ট হলেও অফিস তো তা বুঝবে না। তাই হেঁটে যাচ্ছি। বেশি হাঁটতে পারি না। তবে আজ যে কারণে এ পরিস্থিতি তাতে শিক্ষার্থীদের উপর কোনো ক্ষোভ নেই আমাদের।’

তেজগাঁও জোনের সিনিয়র সহকারী কমিশনার (এসি) আবু তৈয়ব মোহাম্মদ আরিফ বলেন, ‘মঙ্গলবারও তারা রাস্তায় বসেছিল। আমরা দ্রুত তাদের সরিয়ে দিয়েছিলাম। আজও তারা পূর্ব ঘোষিত কর্মসূচির অংশ হিসেবে রাস্তায় এসেছে। আমরা বোঝানোর চেষ্টা করছি, দ্রুত তারা রাস্তা ছেড়ে দিবে।’

রোববার (৩১জুলাই) বেলা সাড়ে ১২টার দিকে জাবালে নূর পরিবহনের একটি বাসের চাপায় শহীদ রমিজ উদ্দিন ক্যান্টনমেন্ট কলেজের দুই শিক্ষার্থীর মৃত্যু হয়। নিহতরা হলেন- শহীদ রমিজ উদ্দিন ক্যান্টনমেন্ট কলেজের মানবিক শাখার দ্বাদশ শ্রেণির আবদুল করিম এবং একাদশ শ্রেণির দিয়া খানম রিয়া। এর প্রতিবাদে টানা তিনদিন ধরেই রাজধানীর বিভিন্ন শিক্ষা প্রতিষ্ঠানের শিক্ষার্থীরা সড়ক অবরোধ ও বিক্ষোভ চালিয়ে আসছে। -ডেস্ক