জুলফিকার রায়হান সাতক্ষীরা প্রতিনিধি (দিনাজপুর২৪.কম) তালা থানা পুলিশ মঙ্গলবার গভীর রাতে (বুধবার রাত ১টা ৩০ মিনিট) উপজেলার জেঠুয়া গ্রাম থেকে সীমানা পিলার চক্রের ৫জন সদস্যকে আটক করেছে। এসময় তাদের কাছ থেকে অত্যাধুনিক একটি মেটাল ডিটেক্টর উদ্ধার করা হয়। থানার চৌকোস পুলিশ অফিসার এস.আই প্রীতিশ রায় এবং এ.এস.আই সেলিম রেজার নেতৃত্বে পুলিশ তাদের আটক করেন।
তালা থানার ওসি মো. মেহেদী রাসেল জানান, মঙ্গলবার রাতে এস.আই প্রীতিশ রায় ও সেলিম রেজা সহ একদল পুলিশ উপজেলার জেঠুয়া এলাকায় রাত্রীকালীন রনপাহারা সহ বিভিন্ন ডিউটি অভিযান চালাচ্ছিল। এসময় জেঠুয়া তিনরাস্তা মোড় সংলগ্ন ঈদগাহ এলাকায় পুলিশের গাড়ি পৌছলে কয়েকজন ব্যক্তি দৌড়ে পালানোর চেষ্টা করে। তৎক্ষনাত পুলিশ ধাওয়া করে পাটকেলঘাটা থানার লালচন্দ্রপুর গ্রামের শেখ আব্দুল মজিদ’র ছেলে শেখ লিটন ইসলাম, নোয়াখালী জেলার বেগমগঞ্জ উপজেলার বসন্তবাগ গ্রামের মৃত. আব্দুস সাত্তার শেখ’র ছেলে আলমগীর হোসেন ওরফে শুভ, তালা থানার নেহালপুর গ্রামের মো. রেজওয়ান’র ছেলে মো. ফারুক হোসেন, নারায়নপুর গ্রামের মো. রফিকুল মোড়ল’র ছেলে মো. মনিরুল ইসলাম এবং চাঁদকাটি গ্রামের আব্দুল জব্বার’র ছেলে মো. শাহীনকে আটক করে। একই সাথে ধৃতদের কাছ থেকে মাটির গভীরে থাকা ম্যাগনেট, তামা, লোহা, স্বর্ণ সহ বিভিন্ন ধাতব পদার্থের সংকেত গ্রহনে সক্ষম অত্যাধুনিক একটি মেটাল ডিটেক্টর উদ্ধার করা হয়। এঘটনায় আটককৃতদের বিরুদ্ধে তালা থানায় একটি মামলা দায়ের করে বুধবার দুপুরে তাদের সাতক্ষীরা বিজ্ঞ আদালতের মাধ্যমে জেলা হাযতে প্রেরন করা হয়।
ওসি মেহেদী রাসেল আরো জানান, আটককৃতরা সীমানা পিলার, স্বর্নের ও কষ্টি পাথরের মূর্তি সহ প্রাচীন আমলের বিভিন্ন দাতব পদার্থ বিক্রি বা পাইয়ে দেবার কথা বলে প্রতারনার মাধ্যমে মানুষের কাছ থেকে লক্ষ লক্ষ টাকা হাতিয়ে নেবার চক্রান্ত করছিল।