(দিনাজপুর২৪.কম) বাণিজ্য মন্ত্রী তোফায়েল আহমেদ বলেছেন, জিএসপি না পাওয়া গেলে টিকফা যে উদ্দেশ্যে করা হয়েছে সেটা অর্থবহ হবে না। এখন তাদের (যুক্তরাষ্ট্র) ওপর নির্ভর করছে তারা আমাদের জিএসপি দেবে কি দেবে না। সচিবালয়ে যুক্তরাষ্ট্রের দক্ষিণ ও মধ্য এশিয়া বিষয়ক সহকারী বাণিজ্য প্রতিনিধি মাইকেল জে ডিলেনি ও বাংলাদেশে নিযুক্ত মার্কিন রাষ্ট্রদূত মার্শা বার্নিকাটসহ আট সদস্যের প্রতিনিধি দলের সঙ্গে মন্ত্রীর বৈঠক শেষে সাংবাদিকদের কাছে তিনি এসব কথা বলেন। বাণিজ্য মন্ত্রী বলেন, জিএসপি পাওয়ার ক্ষেত্রে যুক্তরাষ্ট্র যে ১৬ টি শর্ত দিয়েছিল সেগুলোর সবগুলোই পূরণ করেছি। তারা বলেছে আমাদের যথেষ্ট অগ্রগতি হয়েছে। তারা চট্টগ্রাম ইপিজেড পরিদর্শন করেছে। সেখানে বিভিন্ন শ্রমিকের সঙ্গে সরাসরি কথা বলেছে। জিএসপি বিষয়ে বাণিজ্যমন্ত্রী বলেন, আমি তাদের পরিষ্কার বলে দিয়েছি আমাদের পক্ষ থেকে যা করা হয়েছে, এর বাইরে কিছু করা সম্ভব নয়। তারা জানিয়েছে, আগামী নভেম্বরে অনুষ্ঠেয় যুক্তরাষ্ট্রের সঙ্গে বাণিজ্য ও বিনিয়োগ সহযোগিতা ফোরাম চুক্তির (টিকফা) বৈঠকে বিষয়টি আলোচনা করা হবে। জিএসপি ফিরে পেতে যুক্তরাষ্ট্র নতুন কোন শর্ত দিয়েছে কি না, জানতে চাইলে তিনি বলেন, না। নতুন কোনো শর্ত নেই। এদিকে বাণিজ্য মন্ত্রীর সঙ্গে বৈঠকে ডেলনি বলেন, গার্মেন্ট শ্রমিকদের ট্রেড ইউনিয়ন করার অধিকার রয়েছে। ইপিজেডে যত শিল্পকারখানা আছে,  সেখানকার সব শ্রমিকদের নিয়ে একটি ট্রেড ইউনিয়ন থাকতে হবে। বাণিজ্যমন্ত্রী তাদের আশ্বস্ত করে বলে। -ডেস্ক