(দিনাজপুর২৪.কম) রাজধানীর গুলিস্তানে ঢাকা ট্রেড সেন্টারের ব্যবসায়ীদের সাথে হকারদের আবার সংঘর্ষের ঘটনা ঘটেছে। পরিস্থিতি নিয়ন্ত্রণে পুলিশ টিয়ারশেল নিক্ষেপ করেছে।পরে হকাররা গুলিস্তানের সড়ক অবরোধ করে বিক্ষোভ শুরু করে। এতে বন্ধ হয়ে গেছে বায়তুল মোকাররম থেকে গুলিস্তান, নবাবপুর এবং ফুলবাড়িয়া বাসস্ট্যান্ড সংলগ্ন সড়ক। শুক্রবার (১০ জুন) সকালে ব্যবসায়ীদের সঙ্গে হকারদের আবার সংঘর্ষ শুরু হয়। পল্টন থানার উপপরিদর্শক (এসআই) লাকী আক্তার বাংলামেইলকে সংঘর্ষের কথা জানান। তিনি বলেছেন, পুলিশ পরিস্থিতি নিয়ন্ত্রণের চেষ্টা করছে।

গতকাল বৃহস্পতিবারও গুলিস্তানে হকারদের সঙ্গে স্থানীয় দোকানদারদের দফায় দফায় সংঘর্ষ হয়। এ ঘটনায় পুলিশ কয়েকজনকে আটক করেছে।

হকার উচ্ছেদ করে চলাচলের উপযোগী করা ফুটপাত ঢাকা দক্ষিণ সিটি করপোরেশনের মেয়র সাঈদ খোকন ও ঢাকা মহানগর পুলিশ কমিশনার আছাদুজ্জামান মিয়া পরিদর্শন করে যাওয়ার পরপরই এই সংঘর্ষ বাঁধে।

প্রত্যক্ষদর্শীরা জানান, মেয়র সাঈদ খোকন চলে যাওয়ার পরপরই ঢাকা ট্রেড সেন্টারের দোকান মালিক ও ফ্লাইওভারের নিচে ফুটপাতে বসা হকারদের মধ্যে মারামারি শুরু হয়।

দোকান মালিক ও হকারদের সংঘর্ষ চলাকালে ইটের আঘাতে মাথা ফেটে যায় মতিঝিল জোনের ডিসি আনোয়ার হোসেনের। তাকে আহত অবস্থায় ঢাকা মেডিকেল কলেজ (ঢামেক) হাসপাতালে নেয়া হয়েছে এ তথ্য নিশ্চিত করেছেন মতিঝিল জোনের এসি এহসান।

ঢাকা ট্রেড সেন্টারের ব্যবসায়ীদের অভিযোগ, ফুটপাতে হকারদের উচ্ছেদ করার পরও তারা আবার বসে ব্যবসা চালিয়ে যাচ্ছে। চলে যেতে বললে না গিয়ে উল্টো কমিটির লোকদের মারধর শুরু করে হকাররা। তবে হকারদের দাবি, দোকান মালিকরা তাদের মালামাল লুট করেছে। -ডেস্ক