(দিনাজপুর২৪.কম) এবার ময়মনসিংহে একজন বীর মুক্তিযোদ্ধা মৃত্যুর পর গার্ড অব অর্নার নিতে অস্বীকৃতি জানিয়েছেন। জেলার তারাকান্দা উপজেলার ধলীরকান্দা গ্রামের বীর মুক্তিযোদ্ধা আব্দুল লতিফ সরকার ৬ নভেম্বর জেলা প্রশাসক বরাবরে এক পত্রে এ অস্বীকৃতি জানান।

তিনি ওই আবেদনে লিখেছেন, ‘যে প্রশাসনের নিকট ন্যায় বিচার পাওয়া যায়নি সে প্রশাসন থেকে মৃত্যুর পর রাষ্ট্রীয় সম্মাননা নিতে অস্বীকার করছি।’

তিনি বলেছেন, ‘নিয়মিত বিদ্যুৎ বিল দেয়ার পরও ফুলপুর পিডিপি গত ২৮ আগস্ট রাত ৩টার সময় তার ছেলে সহল মিয়ার বিদ্যুৎসংযোগ বিচ্ছিন্ন করে এবং মিথ্যা, বানোয়াট অভিযোগের মাধ্যমে ১৩,৯১০২/- টাকা জরিমানা আদায়ে তার বিরুদ্ধে মিথ্যা মামলা করে।’

তিনি বলেন, ‘এ ব্যাপারে বিদ্যুৎ বিভাগের ঊর্ধ্বতন কর্মকর্তা এবং স্থানীয় প্রশাসনের নিকট তদন্তপূর্বক ন্যায় বিচারের জন্য বহু আবেদন-নিবেদন করেও কোন কাজ হয়নি।’

প্রসঙ্গত, এবার মৃত্যুর পর রাষ্ট্রীয় সম্মান (গার্ড অব অনার) না দিতে জেলা প্রশাসন বরাবর চিঠি দিয়েছেন পঞ্চগড়ের আটোয়ারীর মুক্তিযোদ্ধা সলিম উদ্দিন। ঘুষছাড়া ছেলের চাকরি না হওয়ায় ক্ষোভে তিনি রাষ্ট্রীয় মর্যাদায় শেষ বিদায় নিতে অস্বীকৃতি জানান।

গত বৃহস্পতিবার পাঠানো ওই চিঠিতে নিজ পরিবারকেও রাষ্ট্রীয় মর্যাদা ছাড়া দাফনের নির্দেশ দিয়েছেন এই মুক্তিযোদ্ধা।

এর আগে সম্প্রতি ছেলের রুজি-রোজগারের একমাত্র অবলম্বন চাকরি অন্যায়ভাবে কেড়ে নেয়ায় রাষ্ট্রীয় সম্মান ছাড়াই নিজের দাফন চেয়ে প্রশাসনের কাছে চিঠি দিয়েছিলেন দিনাজপুরের মুক্তিযোদ্ধা ইসমাইল হোসেন। তার সেই অসিয়ত অনুযায়ী মৃত্যুর পর পরিবারের সদস্যরা তাকে রাষ্ট্রীয় মর্যাদা গ্রহণ ছাড়াই দাফন করেন। -ডেস্ক