.(দিনাজপুর২৪.কম)শিল্পমন্ত্রী আমির হোসেন আমু জানিয়েছেন, রমজান মাসের পবিত্রতা রক্ষায় বিএসটিআই ও ঢাকা জেলা প্রশাসনের উদ্যোগে ঢাকা মহানগরীতে প্রতিদিন ৪টি করে মোবাইল কোর্ট পরিচালনা করা হবে। এ ছাড়া সারা দেশে বিএসটিআই’র আঞ্চলিক অফিসের মাধ্যমে এ ধরনের ভেজালবিরোধী অভিযান পরিচালিত হবে। গতকাল শিল্প মন্ত্রণালয়ে রমজান উপলক্ষে আয়োজিত এক সংবাদ সম্মেলনে তিনি এ কথা বলেন। শিল্পমন্ত্রী বলেন, রোজাদাররা সচরাচর যে সব খাদ্য ও পানীয় গ্রহণ করে থাকেন যেমন- মুড়ি, খেজুর, কলা, সফ্ট ড্রিংক পাউডার, ফ্রুট জুস, ফ্রুট ড্রিংকস, ভোজ্যতেল, ঘি, নুডলস, লাচ্ছা সেমাই, সেমাই, পানি, ডেক্সট্রোজ মনোহাইড্রেট ইত্যাদির ওপর অভিযান পরিচালনাকারীদের বিশেষ নজরে থাকবে। তিনি বলেন, যখন-তখন যে কোনো জায়গায় আমরা মোবাইল কোর্ট পরিচালনা করব। রাস্তার পাশের শরবতের দোকান থেকে বড় বড় ফ্যাক্টরি- সব জায়গায় আমরা অভিযান চালাব। মহানগরীর বাইরে কেরানীগঞ্জ, সাভার, ধামরাই উপজেলাসহ বিভিন্ন উপজেলায় মোবাইল কোর্টের কার্যক্রম পরিচালিত হবে।

শিল্পমন্ত্রী বলেন, রমজানে যাতে নির্ভেজাল খাদ্য ও পানীয় সরবরাহ নিশ্চিত করা যায়, সে লক্ষ্যে এরইমধ্যে ইফতার ও সেহেরিতে অধিক পরিমাণে ব্যবহৃত ৩০টি খাদ্যপণ্যের নমুনা সংগ্রহ করে ল্যাবে পরীক্ষণের জন্য প্রেরণ করা হয়েছে। এ কার্যক্রম অব্যাহত আছে ও থাকবে। ব্যবসায়ীদের উদ্দেশে তিনি বলেন, ব্যবসায়ীরা যে ধর্মেই বিশ্বাস করুন না কেন, ভেজাল খাবার বিক্রি করলে তারা উপকৃত হবেন না। তাদের পরিবারও ক্ষতিগ্রস্ত হবে। সংবাদ সম্মেলনে উপস্থিত ছিলেন শিল্প সচিব মোশাররফ হোসেন ভুঁইয়া, বিএসটিআইয়ের মহাপরিচালক ইকরামুল হক, শিল্প মন্ত্রণালয়ের অতিরিক্ত সচিব সুষেণ চন্দ্র দাস প্রমুখ। (ডেস্ক)