(দিনাজপুর২৪.কম) একাদশ জাতীয় সংসদ নির্বাচন নিয়ে নির্বাচন কমিশন (ইসি) ক্ষমতাসীন আওয়ামী লীগের এজেন্ডা বাস্তবায়ন করছে বলে অভিযোগ করেছেন জাতীয়তাবাদী গণতান্ত্রিক আন্দোলন (এনডিএম) ও ‘গণঐক্য’র চেয়ারম্যান ববি হাজ্জাজ। গতকাল শুক্রবার দুপুরে কক্সবাজারের একটি অভিজাত হোটেলের কনফারেন্স হলে স্থানীয় গণমাধ্যমকর্মী ও দলের বিভিন্ন উপজেলা প্রতিনিধিদের নিয়ে মতবিনিময় সভায় ববি হাজ্জাজ এই কথা বলেন। নির্বাচন নিয়ে সংশয় প্রকাশ করে মতবিনিময় সভায় তিনি বলেন, দেশে যে পরিস্থিতি বিরাজ করছে তাতে আগামী নির্বাচন সুষ্ঠু হবে কিনা সন্দেহ রয়েছে। চোর ও নাশকতাকারী সেনাপতিতের হাত কেটে ফেলতে হবে। অন্যথায় জনগণের সুষ্ঠু ভোটাধিকার প্রয়োগে বিঘ্ন ঘটবে। দেশে চলমান গুম, খুনের কারণে গণতন্ত্র আজ প্রশ্নবিদ্ধ হয়েছে। ববি হাজ্জাজ আরো বলেন, ইসলামের নির্দেশনা মেনে চলতে হবে। মানুষকে সঠিক পথে চালানোর জন্য ‘গণঐক্য’ গড়েছি। সে পথে আমরা এগুচ্ছি। কেউ আমাদের পথকে রুদ্ধ করতে পারবে না।

গণঐক্য’র চেয়ারম্যান ববি হাজ্জাজ বলেন, যে দল মাদকের বিরুদ্ধে স্বেচ্ছাচারের কথা বলে তাদের দলের নেতারাই ইয়াবা পাচারে জড়িত। মাদক ব্যবসায়ীদের প্রার্থী করেছে। তাহলে দেশের যুবসমাজকে রক্ষা করবে কারা?

তার অভিযোগ, যেভাবে সরকারি দলের প্রার্থীরা আচরণবিধি লঙ্ঘন করছে, তা কিছুতেই কাম্য নয়। নিয়মনীতি কিছুই মানছে না ক্ষমতাসীন দলের নেতারা।
আগামী নির্বাচনে আমরা যে যার অবস্থান থেকে পোলিং এজেন্ট এর ভূমিকা রাখবো। কোন ভোট কারচুপি, অন্যায় হতে দিব না।

মতবিনিময় সভায় ববি হাজ্জাজ আরো বলেন, দেশে প্রায় সকল গুরুত্বপূর্ণ জেলায় আমরা প্রার্থী দিয়েছি। কক্সবাজারের তিনটি আসনে আমরা নির্বাচন করছি। যদি সুষ্ঠু নির্বাচন হয় তাহলে আমাদের প্রার্থীরা বিজয়ী হবে।

কোরআনের আয়াত উল্লেখ করে ববি হাজ্জাজ বলেন, উপরে আল্লাহ নিচে আমাদের দেশ। দেশের মাটির পবিত্রতা রক্ষার দায়িত্ব আমাদের। আগামী ৩০ দিন আমাদের মাঠে থাকতে হবে। আমাদের প্রার্থীর বিরুদ্ধে অপপ্রচারের কঠিন জবাব দেয়া হবে। ষড়যন্ত্রকারীদের ছাড় দেয়া হবে না।

সভায় ববি হাজ্জাজ কক্সবাজারের তিনটি আসনের গণঐক্যের প্রার্থীদের পরিচয় করিয়ে দেন।

সভায় বিশেষ অতিথির বক্তব্য রাখেন বাংলাদেশ মুসলিম লীগ ও গণঐক্যের মহাসচিব আবুল খায়ের, জাতীয়তাবাদী গণতান্ত্রিক আন্দোলনের দফতর সম্পাদক ও যুব আন্দোলনের সভাপতি লায়ন নুরুজ্জামান হিরা। স্বাগত বক্তব্য রাখেন কক্সবাজারের আহবায়ক মাস্টার সেলিম উদ্দিন।

মতবিনিময় সভায় উপস্থিত ছিলেন গণঐক্যের প্রার্থী কক্সবাজার-১ (চকরিয়া-পেকুয়া) মোহাম্মদ ফয়সাল, কক্সবাজার-২ (মহেশখালী-কুতুবদিয়া) মাওলানা শহীদুল্লাহ ও কক্সবাজার-৪ আসনের অ্যাডভোকেট সাইফুদ্দিন খালেদ।

সভা পরিচালনা করেন জাতীয়তাবাদী গণতান্ত্রিক যুব আন্দোলনের কেন্দ্রীয় সদস্য শাহাদত হোসাইন। সভায় বিভিন্ন উপজেলা প্রতিনিধিরা বক্তব্য রাখেন। তারা আগামী নির্বাচন সুষ্ঠু করতে ভোটকেন্দ্র পাহারা দিবেন বলে শপথ করেন।