মো.নুরুজ্জামান (দিনাজপুর২৪.কম) কুষ্টিয়ার কুমারখালীতে ‘বন্দুকযুদ্ধে’ এক মাদক ব্যবসায়ী নিহত হয়েছেন। উদ্ধার হয়েছে মাদক, অস্ত্র ও গুলি। কুমারখালী থানা পুলিশের দাবি, নিহত ব্যক্তি একজন মাদক ব্যবসায়ী। সোমবার রাত সাড়ে ৩টার দিকে কুষ্টিয়ার কুমারখালী উপজেলার আদাবাড়িয়া এলাকার চেচুয়া বিলের পাশে ‘বন্দুকযুদ্ধের’ এ ঘটনা ঘটে। পুলিশ ঘটনাস্থল থেকে ১টি বিদেশী পিস্তুল, ৩ রাউন্ড গুলি ও ১০০পিস ইয়াবা উদ্ধার করেছে।
নিহত ব্যক্তির নাম ইমদাদ খুনকার (৩৮)। তিনি কুষ্টিয়ার ইসলামী বিশ্ববিদ্যালয় থানার রঞ্জিতপুর গ্রামের কটা খুনকার ওরফে রাফি’র ছেলে। পুলিশের ধারনা মাদক ব্যবসা নিয়ে সৃষ্ট বিরোধে প্রতিপক্ষের সঙ্গে এই ‘বন্দুকযুদ্ধের’ ঘটনা ঘটতে পারে।তার বিরুদ্ধে জেলার বিভিন্ন থানায় বেশ কয়েকটি মাদক মামলা রয়েছে।কুমারখালী থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) এ কে এম মিজানুর রহমান জানান, ভোর রাত আনুমানিক সাড়ে ৩ টার দিকে পুলিশের কাছে খবর আসে কুমারখালী উপজেলার আদাবাড়িয়া এলাকায় চেচুয়া বিলের পাশে দু’পক্ষের মধ্যে ‘বন্দুকযুদ্ধ’ হচ্ছে। এমন সংবাদের ভিত্তিতে কুমারখালী থানা পুলিশের একটি দল ঘটনাস্থলে পৌঁছলে তারা পুলিশেকে লক্ষ্য করে গুলি ছোঁড়ে। জবাবে পুলিশও পাল্টা গুলি চালায়। একপর্যায়ে তারা পিছু হটলে ঘটনাস্থল থেকে পুলিশ গুলিবিদ্ধ একজনকে উদ্ধার করে কুষ্টিয়া জেনারেল হাসপাতালে নিয়ে আসলে কর্তব্যরত চিকিৎসক তাকে মৃত ঘোষণা করে। নিহতের লাশ ময়নাতদন্তের জন্য ২৫০ শয্যা বিশিষ্ট কুষ্টিয়া জেনারেল হাসপাতালের মর্গে রাখা হয়েছে।