ছবি-সংগ্রহীত

(দিনাজপুর২৪.কম) করোনার ভ্যাকসিন নিয়ে সরকার দুর্নীতি করছে বলে অভিযোগ করেছেন বিএনপি মহাসচিব মির্জা ফখরুল ইসলাম আলমগীর। আজ বৃহস্পতিবার দলের আয়োজিত এক অনুষ্ঠানে তিনি এই অভিযোগ করেন। গুলশানে চেয়ারপারসনের কার্যালয়ে বিএনপির উদ্যোগে স্বাস্থ্য খাত ও প্রেসিডেন্ট জিয়াউর রহমান শীর্ষক প্রামাণ্য চিত্রের মোড়ক উন্মোচন উপলক্ষে এই অনুষ্ঠান হয়।

তিনি বলেন, ‘এত বড় একটা করোনা অতিমারী আমাদের আক্রমণ করেছে, সারা বিশ্ব আক্রমণ করেছে এটাকে মোকাবিলা করার জন্য তাদের ভূমিকাটা দেখেন। প্রতিটি ক্ষেত্রে শুধু তারা দুর্নীতি করবার জন্য কাজগুলো করেছে। এমনভাবে শুরু হয়েছে যে, এটা এখন ভঙ্গুর অবস্থায়। এখন ভ্যাকসিন নিয়ে শুরু হয়েছে। এই ভ্যাকসিনেও কীভাবে দুর্নীতি হচ্ছে। দুই ডলার ৩৩ সেন্ট দিয়ে কেনা ভ্যাকসিন- এরা (সরকার) চার ডলার দিয়ে কিনছে। সেখানে মধ্য স্বত্ত্বভোগী তাদের নিজস্ব একজন সুবিধাভোগীকে তারা সেই দায়িত্ব্ অর্পন করেছে।’

ফখরুল বলেন, ‘বর্তমান সরকারের হাতে স্বাস্থ্য খাত ধ্বংস হয়ে গেছে। সাধারণ মানুষ কোনো স্বাস্থ্য সেবা পায় না। এখানে উদ্দেশ্যমূলকভাবে সাধারণ মানুষ যাদের সাংবিধানিক অধিকার রয়েছে স্বাস্থ্য সেবা পাওয়া সেটা তারা পাচ্ছে না। প্রতিটি ক্ষেত্রে দেখবেন এখানে একমাত্র লক্ষ্য হচ্ছে-দুর্নীতি। যার ফলে কী করে জনগণের পকেটে থেকে টাকা বের করে নিয়ে এসে তাদের পকেটে ভরবে। যার ফলে কী হয়েছে? দুই শ্রেণি হয়েছে। একটা দরিদ্র্য শ্রেণি, আরেকটা বিত্তশ্রেণি। বড় লোক শুধু বড়ই হয়েছে আর গরিবরা শুধু গরিবই হয়েছে।’

বিএনপি চেয়ারপারসনের উপদেষ্টা কাউন্সিলের সদস্য অধ্যাপক সিরাজউদ্দিন আহমেদের সভাপতিত্বে ও ডা. মাহমুদুর রহমান নোমানের পরিচালনায় অনুষ্ঠানে আরও বক্তব্য দেন-বিএনপির ভাইস চেয়ারম্যান অধ্যাপক এজেডএম জাহিদ হোসেন, চেয়ারপারসনের উপদেষ্টা কাউন্সিলের সদস্য অধ্যাপক আব্দুল কুদ্দুস, জ্যেষ্ঠ যুগ্ম মহাসচিব রুহুল কবির রিজভী, মহিলা দলের সভানেত্রী আফরোজা আব্বাস, স্বাস্থ্য সম্পাদক ডা. রফিকুল ইসলাম, বিশেষজ্ঞ চিকিতসক অধ্যাপক সাইফুল ইসলাম প্রমুখ।

অনুষ্ঠানে চিকিৎসকদের মধ্যে  উপস্থিত ছিলেন-সাইফুল ইসলাম সেলিম, মোফাক্কারুল ইসলাম রানা, আবদুস শাকুর খান, আজহারুল ইসলাম. জাহিদুল কবির, ফেরদৌস আহমেদ, নিলুফার ইয়াসমীন, জাহানারা বেগমসহ বিভিন্ন হাসপাতালের চিকিৎসকরা। -ডেস্ক