(দিনাজপুর২৪.কম) টঙ্গীর বিশ্ব ইজতেমা ময়দান ঘিরে তাবলিগ জামাতের দুই পক্ষের মুখোমুখি অবস্থানকে কেন্দ্র করে রাজধানীর বিমানবন্দর সড়কসহ আশপাশের সড়কগুলোতে তীব্র যানজট ও দুর্ভোগের সৃষ্টি হয়েছে।  এরইমধ্যে উত্তরা- বিমানবন্দর এলাকায় তাবলিগ জামাতের দুই পক্ষের মধ্যে সংঘর্ষ ও ধাওয়া-পাল্টা ধাওয়ার ঘটনা ঘটেছে। একপক্ষ অপরপক্ষকে ঠেকাতে বিমানবন্দর সড়কের উভয়পাশে অবস্থান নেয়ায় ওই রাস্তায় যান চলাচল বন্ধ হয়ে গেছে। ঢাকা-ময়মনসিংহ সড়কের উত্তরা, হাউজ বিল্ডিং, বিমানবন্দর, খিলক্ষেত ছাড়িয়ে গেছে যানজট।

ঢাকা মহানগর পুলিশের ট্রাফিক উত্তরা বিভাগের উপ-কমিশনার প্রবীর কুমার দাশ জানান, শনিবার ভোর থেকেই আশকোনা এলাকায় মারমুখী অবস্থান নিয়েছেন তাবলিগ জামাতের দুই গ্রুপ। উত্তরার আব্দুল্লাহপুরে অবস্থান নিয়েছে আরেক পক্ষ। সংঘর্ষের পর ধাওয়া-পাল্টা ধাওয়ায় সড়ক স্থবির হয়ে পড়ে।

উদ্ভূত পরিস্থিতি নিয়ে তাবলিগ–সংশ্লিষ্টরা জানিয়েছেন, ৩০ নভেম্বর থেকে ৪ ডিসেম্বর পর্যন্ত ৫ দিনের জোড় (সম্মিলন) এবং ১১-১৩ জানুয়ারি ২০১৯ পর্যন্ত তিন দিনের ইজতেমা করার ঘোষণা দিয়েছেন ভারতের তাবলিগ জামাতের মুরব্বি সাদ কান্ধলভীর অনুসারীরা।

অপরদিকে তাবলিগের মাওলানা জোবায়ের অনুসারীরা ডিসেম্বরের ৭ থেকে ১১ তারিখ পর্যন্ত জোড় এবং আগামী বছরের জানুয়ারির ১৮ থেকে ২০ তারিখ পর্যন্ত তিন দিন ইজতেমার ঘোষণা দিয়েছেন। দুই পক্ষের বিবদমান বিরোধের জেরে আজ সকাল থেকেই বিরূপ পরিস্থিতি সৃষ্টি হয়েছে।

শনিবার সকালে সাদ গ্রুপের লোকজন মাঠে প্রবেশ করতে গেলে সেখানে উত্তেজনা দেখা দেয়। জোবায়ের গ্রুপের লোকজন লাঠি হাতে দাঁড়িয়ে আছেন। অন্যদিকে সাদ গ্রুপের লোকজন কামালপাড়া এলাকায় রাস্তা বন্ধ করে সেখানে অবস্থান নিয়েছেন। -ডেস্ক