(দিনাজপুর২৪.কম)২০১১ সালে কোপা আমেরিকার কোয়ার্টার ফাইনাল থেকে বিদায়ের পর সার্জিও বাতিস্তাকে বহিষ্কার করে আর্জেন্টাইন ফুটবল অ্যাসোসিয়েশনের (এএফএ)। সে সময় বাতিস্তার স্থলাভিষিক্ত হন আলেসান্দ্রো সাবেলা।আলবিসেলেস্তেদের দায়িত্ব নেওয়া পর পরিসংখ্যান ছিল চমৎকার। লাতিন অঞ্চল থেকে শীর্ষস্থান দখল করেই বিশ্বকাপের বাছাইপর্ব শেষ করে মেসি-আগুয়েরো-ডি মারিয়ারা।ব্রাজিল বিশ্বকাপে অপরাজিত থেকেই ফাইনালে পৌঁছে যায় লিওনেল মেসি নেতৃত্বাধীন দলটি। ফাইনালে গিয়ে জার্মানির কাছে ১-০ গোলে হেরে বিশ্বকাপ জেতার স্বপ্ন ধুলিসাৎ হয় এ আর্জেন্টাইন কোচের।ওই বছরের জুলাইয়ের শেষ দিকে দল থেকে পদত্যাগ করেন সাবেলা। তার অধীনে দুবারের বিশ্বচ্যাম্পিয়ন দলটি ৪০ ম্যাচে ২৫ জয় পায়। মাত্র ৫ হার আর ড্র রয়েছে ১০টি। চলতি বছররে বিশ্বকাপে আর্জেন্টিনা দলের পারফরম্যান্স ছিল সম্পূর্ণ বিপরীত। কোনো মতে বাছাই পর্ব পার করে প্রথম রাউন্ডে একটি করে ড্র, হার ও জয় নিয়ে দ্বিতীয় রাউন্ডে উঠে। নকআউট পর্বে ফ্রান্সের বিপক্ষে হেরে বিদায় নিতে হয়। তুমুল সমালোচনায় পড়েন কোচ হোর্হে সাম্পাওয়ালি। গুজব রটে সিনিয়রদের সঙ্গে কোচের দ্বন্দ্বে জড়ানোর কারণেই এমন সমস্যায় পড়তে হয়েছে দক্ষিণ আমেরিকার দলটিকে। রাশিয়া মিশন শেষে ছাঁটাই করা হয় সাম্পাওয়ালিকেও।নতুন খবর হচ্ছে ৪ বছর আগে জুলাইতেই পদত্যাগ করা কোচ সাবেলা ফের আকাশী-সাদা শিবিরের দায়িত্ব বুঝে পাচ্ছেন। এমনটাই জানিয়েছে দেশটির গণমাধ্যমগুলো।টিওয়াই স্পোর্টসের বরাতে মুন্ডো আলবিসেলেস্তেদের জানায়, এএফএ-র সঙ্গে ২০১৯ সালের কোপা আমেরিকা পর্যন্ত চুক্তিও করতে চলেছেন ৬৩ বছর বয়সী সাবেলা। শুধু তাই নয়, সিনিয়রদের পাশাপাশি আর্জেন্টিনা অনূর্ধ্ব-২০ দলের দায়িত্বও গ্রহণ করতে চলেছেন এ আর্জেন্টাইন।আগামী বছরের শুরুর দিকে দক্ষিণ আমেরিকা অনূর্ধ্ব-২০ টুর্নামেন্টে আসর বসছে চিলিতে। আর তার প্রস্তুতি শুরুর জন্য দ্রুতই নিয়োগ পেতে চলেছেন বলে জানায় গণমাধ্যমগুলো। যদিও আর্জেন্টাইন ফেডারেশনের পক্ষ থেকে কিছুই জানানো হয়নি।-ডেস্ক