(দিনাজপুর২৪.কম) আফগানিস্তানের পূর্বাঞ্চলে ৮৩ জন আরোহী নিয়ে একটি যাত্রীবাহী বিমান বিধ্বস্ত হয়েছে। দেশটির গজনি প্রদেশের দে আক জেলায় বিমানটি বিধ্বস্ত হওয়ার পর আগুন ধরে যায়। ওই প্রদেশের এক সরকারি কর্মকর্তা এ তথ্য জানিয়েছেন। খবর বিবিসি, রয়টার্স।

বিমানটিতে যান্ত্রীক ত্রুটির কারণে এ দুর্ঘটনা ঘটে বলে প্রাথমিকভাবে জানানো হয়েছে। বোয়িং-৭৩৭-৪০০ মডেলের এ বিমানটি আফগানিস্তানের আরিয়ানা এয়ারলাইন্সের বলে জানানো হলেও প্রাথমিকভাবে প্রতিষ্ঠানটির পক্ষ থেকে তা অস্বীকার করা হয়েছে।

বিমানটিতে ৮৩ জন আরোহী রয়েছেন বলে জানানো হয়েছে। তবে হতাহতের সংখ্যা এখনও জানা যায়নি।

রুশ সম্প্রচার মাধ্যম আরটির প্রতিবেদনে জানানো হয়েছে, রাজধানী কাবুল থেকে হেরাতের উদ্দেশে রওনা করার জন্য উড্ডয়নের পর দেশটির উত্তরাঞ্চলীয় গজনি প্রদেশের দেহ ইয়ান নামক জেলার একটি পাহাড়ের ওপর বিমানটি বিধ্বস্ত হয়। বিমানটির মালিকানা আরিয়ানা আফগান নামক একটি সরকারি বিমান পরিবহন কোম্পানির।

ব্রিটিশ দৈনিক ডেইলি মিররের খবরে জানানো হয়েছে, বিমানটি বিধ্বস্ত হওয়ার পর এখনো ঘটনাস্থলের সর্বশেষ অবস্থা জানা যায়নি। কতজন হতাহত হয়েছেন তাও নিশ্চিত হতে পারেনি কোনো সংবাদমাধ্যম কিংবা সরকারি কর্মকর্তারা। তবে সোমবারের ওই বিমান দুর্ঘটনায় অনেকে হতাহত হয়েছেন বলে আশঙ্কা করা হচ্ছে।

স্থানীয় গণমাধ্যমের প্রতিবেদনে জানানো হয়েছে, রাষ্ট্রীয় মালিকানাধীন ওই বিমানটি কাবুল থেকে হেরাতের উদ্দেশে উড্ডয়নের পর স্থানীয় সময় দুপুর সোয়া ১টায় রাজধানী থেকে দক্ষিণ-উত্তরের একটি পাহাড়ি এলাকায় বিধ্বস্ত হয়। প্রতিবেদন অনুযায়ী, তালেবান সদস্যরা ঘটনাস্থলে উপস্থিত হয়ে সেখানে আগুন জ্বালিয়ে দেয়ার চেষ্টা করছেন। -ডেস্ক