(দিনাজপুর২৪.কম) প্রখ্যাত চলচ্চিত্র নির্মাতা ও অভিনেতা কাজী হায়াতের শারীরিক অবস্থার কিছুটা উন্নতি হয়েছে। নিবিড় পরিচর্যা কেন্দ্রের (আইসিইউ) বিছানায় শুয়ে দেশবাসীর কাছে দোয়া চেয়েছেন গুণী এই নির্মাতা।

এক ভিডিও বার্তায় কাজী হায়াৎ বলেন, ‘আমি এখন এই মুহূর্তে আইসিইউতে, এখন ভালো আছি। আমার জন্য দোয়া করবেন সবাই। হয়তো এই যাত্রায় বেঁচে যেতে পারি। আল্লাহর কাছে আপনাদের দোয়া অবশ্যই গ্রহণ যোগ্য হবে। মানুষের দোয়া, সারা বাংলাদেশের ভক্তদের দোয়া আমাকে বাঁচিয়ে রাখবে।’

এ‌দি‌কে, কাজী হায়াতের শারীরিক অবস্থার অবনতি হ‌লে গতকাল রোববার বিকেলে তাকে নিবিড় পরিচর্যা কেন্দ্রে (আইসিইউ) নেওয়া হয়। কাজী হায়াতের ছেলে চিত্রনায়ক কাজী মারুফ জানান, ক‌রোনায় তার ফুসফুস ৪০ শতাংশেরও বেশি ক্ষতিগ্রস্ত হয়েছে।

আজ সোমবার কাজী মারুফ বলেন, ‘আব্বার শরীরের অবস্থা খুব বেশি ভালো না। আইসিউতে নেওয়া হয়েছে। তার ফুসফুস ৪০ শতাংশেরও বেশি ক্ষতিগ্রস্ত হয়েছে। তবে গতকালের চেয়ে আজ কিছুটা উন্নতি হয়েছে। আগে ২০ লিটার প্রয়োজন হতো, এখন অক্সিজেন ১০ লিটার লাগছে। চিকিৎসক বলছেন তিনি সুস্থ হয়ে উঠবেন-এই অবস্থায় দুইদিন অতিবাহিত হলেই আর ঝুঁকি থাকবে না। আব্বার জ্ঞান আছে এবং তিনি কথাও বলতে পারছেন।’

এই অভিনেতা আরও জানান, তার মা রোমিসা হায়াতও করোনা আক্রান্ত ছিলেন। কিন্তু তিনি এখন সুস্থ। হাসপাতাল থেকে বাসায় ফেরার ছাড়পত্র পেয়েছেন।

এর আগে, গত ১০ মার্চ কাজী হায়াত স্ত্রীসহ করোনা আক্রান্ত হওয়ার বিষয়টি জানান। এরপর ১৫ মার্চ তারা রাজধানীর একটি হাসপাতালে ভর্তি হন। সেখানেই তাদের চিকিৎসা চলছে। প্রখ্যাত এই চলচ্চিত্র পরিচালক জানান, তার ওপেন হার্ট সার্জারি হয়েছে একাধিকবার, হার্টে ১০টি রিং পরানো। -ডেস্ক