(দিনাজপুর২৪.কম) রংপুরের পীরগাছা উপজেলায় অফিসে ঢুকে স্ত্রীকে কুপিয়ে জখম করার পর স্বামী গলায় ফাঁস দিয়ে আত্মহত্যা করেছেন বলে অভিযোগ উঠেছে।

সোমবার দুপুর পৌনে ১টার দিকে উপজেলার চৌধুরাণী গ্রামে ব্র্যাক অফিসের ভেতরে এ ঘটনা ঘটে। তৎক্ষণিকভাবে হতাহতদের নামপরিচয় জানা যায়নি।

গুরুতর আহত অবস্থায় স্ত্রীকে রংপুর মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে ভর্তি করা হয়েছে।

পীরগাছা থানার ওসি রেজাউল করীম জানান, ওই স্বামী ও স্ত্রীর মধ্যে পারিবারিক বিরোধ চলছিল। এর জের ধরে সোমবার দুপুর পৌনে ১টার দিকে উপজেলার চৌধুরাণী গ্রামের ব্র্যাক অফিসে ঢুকে স্ত্রীকে কুপিয়ে জখম করেন স্বামী। এরপর সেখানেই গলায় ফাঁস দিয়ে আত্মহত্যা করেন তিনি।

এসময় আফিসের লোকজন ও স্থানীয়রা তাদের উদ্ধার করে রংপুর মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে নিলে সেখানে দায়িত্বরত চিকিৎসক স্বামীকে মৃত ঘোষণা করেন। গুরুতর আহত স্ত্রী সেখানেই চিকিৎসাধীন রয়েছেন। -ডেস্ক