(দিনাজপুর২৪.কম) চট্টগ্রাম বিজ্ঞান কলেজের অধ্যক্ষ ড. জাহেদ খানকে লাঞ্ছিত করেছেন এক ছাত্রলীগ নেতা। পরে সেই নেতাই অধ্যক্ষের বিরুদ্ধে মামলা করেছেন। এ নিয়ে এখনো আনুষ্ঠানিক কোনো অভিযোগ আনেননি মারধরের শিকার হওয়া সেই অধ্যক্ষ। এ নিয়ে সমালোচনার ঝড় বইছে। ফেসবুকে অনেকেই ঘটনার ভিডিও শেয়ার করেছেন।  অভিযুক্ত নুরুল আজিম রনি মহানগর ছাত্রলীগ সাধারণ সম্পাদক। ভিডিওতে দেখা যায় তিনি অধ্যক্ষকে মারতে মারতে একটি কক্ষে নিয়ে আসছেন। সেই কক্ষটি অবশ্য অধ্যক্ষের নিজেরই কক্ষ। গত ৩১ মার্চ এ ঘটনা ঘটেছে।

ভিডিওতে দেখা যায়, ধাক্কা ও কিল-ঘুষির শিকার হওয়ার পর অধ্যক্ষ নিজ আসনে বসেন। পরে সেই ছাত্রলীগ নেতা তার অনুমতির তোয়াক্কা না করেই তার সামনে রাখা চেয়ার বসে পড়েন এবং আঙুল উঁচিয়ে তাকে শাসাতে থাকেন। এসময় কক্ষটিতে অনেক লোক ও একাধিক পুলিশ সদস্যও হাজির ছিলেন। কিন্তু তারা কেউ অধ্যক্ষকে লাঞ্ছনা থেকে বাঁচাতে কোনো উদ্যোগ নেননি।

ওই ঘটনার জেরে সোমবার চট্টগ্রামরে চকবাজার থানায় কলেজ ‘শিক্ষার্থীদের পক্ষে’ মামলা করেন ছাত্রলীগ নেতা রনি। তিনি অধ্যক্ষের বিরুদ্ধে ছাত্রছাত্রীদের কাছ থেকে ‘অতিরিক্ত টাকা আদায়ের’ অভিযোগ এনেছেন।

চকবাজার থানার উসি মীর মোহাম্মদ নূরুল হুদা বলেছেন, ছাত্রলীগ নেতা রনি অধ্যক্ষের বিরুদ্ধে প্রতারণার মামলা করেছে। মামলায় উল্লেখ করা হয়েছে, ৮৯ ছাত্রছাত্রীদের কাছ থেকে সরকারি নিয়মের বাইরে অতিরিক্ত টাকা আদায় করা হয়েছে। মামলায় উল্লেখিত অভিযোগের প্রেক্ষিতে তদন্ত চলছে। -ডেস্ক